Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ ২০১৯, ০৭ চৈত্র ১৪২৫, ১৩ রজব ১৪৪০ হিজরী।

আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশে বিএসইসির নতুন নির্দেশনা

প্রকাশের সময় : ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর প্রান্তিক প্রতিবেদন প্রকাশে নতুন নির্দেশনা জারি করেছে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রণ সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। গত বুধবার বিএসইসির পক্ষ থেকে এ নির্দেশনা জারি করে সংশ্লিষ্ট স্টক এক্সচেঞ্জ ও কোম্পানিগুলোতে পাঠানো হয়েছে বলে সূত্রে জানা গেছে। নির্দেশনায় বলা হয়, তালিকাভুক্ত প্রতিটি কোম্পানির মূল্য সংবেদনশীল তথ্য সংক্রান্ত বোর্ডসভা স্টক এক্সচেঞ্জের লেনদেন শেষে অথবা ছুটির দিনে করতে হবে। আর লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি ছাড়া অন্যান্য কোম্পানির ক্ষেত্রে প্রথম প্রান্তিক আর্থিক প্রতিবেদন ৪৫ দিনের মধ্যে প্রকাশ করতে বলা হয়েছে। এছাড়া দ্বিতীয় এবং তৃতীয় প্রান্তিক আর্থিক প্রতিবেদন ১ মাসের মধ্যে কমিশন এবং স্টক এক্সচেঞ্জে জমা দিতে হবে। অন্যদিকে, লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানির ক্ষেত্রে প্রথম প্রান্তিক ৯০ দিন এবং দ্বিতীয় ও তৃতীয় প্রান্তিক এক মাসের মধ্যে প্রকাশ করতে হবে।
প্রান্তিক প্রতিবেদনগুলোতে শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস), শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) এবং শেয়ারপ্রতি নেট অপারেটিং ক্যাশ ফ্লো (এনওসিএফপিএস) তার আগের বছরের শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য, ইপিএস, শেয়ারপ্রতি নেট অপারেটিং ক্যাশ ফ্লোর সঙ্গে তুলনা করে প্রকাশ করবে। নির্দেশনায় বলা হয়েছে, উল্লেখিত বছরগুলোর প্রান্তিক প্রতিবেদনে যদি অনেক পার্থক্য থাকে তাহলে কোম্পানিগুলো এর কারণ প্রকাশ করবে। কোম্পানিগুলো তাদের ওয়েবসাইটে প্রান্তিক প্রতিবেদন বিস্তারিত আকারে প্রকাশ করবে বলেও বলা হয়েছে। সর্বশেষ বিএসইসির ৫ নম্বর নির্দেশনায় বলা হয়েছে, বিএসইসির এই নির্দেশনা আগের দু’টি জারি করা নির্দেশনা বাতিল করবে। প্রথমটি হলো : নোটিফিকেশন নং- ঝঊঈ/ঈগজজঈউ/২০০৮-১৮৩/অফসরহ/০৩-৩৪, ফধঃবফ ঝবঢ়ঃবসনবৎ ২৭,২০০৯ যা ২০১০ সালের ১২ জানুয়ারি বাংলাদেশ গেজেটে প্রকাশিত হয়।
এছাড়া দ্বিতীয়টি হলোÑ নির্দেশনা নং-ঝঊঈ/ঈগজজঈউ/২০০৯-১৯৩/০৯/অফসরহ/২১, ফধঃবফ ঔধহঁধৎু ১৭, ২০১০ যা ২০১০ সালের ২০ ফেব্রæয়ারি বাংলাদেশ গেজেটে প্রকাশিত হয়। Ñওয়েবসাইট



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ