Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৬ মে ২০২১, ০২ জৈষ্ঠ্য ১৪২৮, ০৩ শাওয়াল ১৪৪২ হিজরী

বিশ্ব জয় করেছে তুরস্কের ড্রোন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:১০ এএম

বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে তুরস্কের সশস্ত্র ড্রোনের প্রশংসা করেছে স্পেনও। স¤প্রতি স্পেনের একটি গণ-মাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, তুরস্কের ড্রোন যুদ্ধের গতি-প্রকৃতি বদলে দিতে পারে। বর্তমানে বিশ্বের বিভিন্ন সঙ্ঘাতে তুরস্কের ড্রোনগুলো ব্যাপক ভ‚মিকা রাখায় এ মন্তব্য করা হয়। একটি স্প্যানিস গণমাধ্যমের একটি নতুন রিপোর্টে বলা হয়েছে, ‘তুরস্কের ড্রোনগুলো বিশ্ব জয় করেছে।’ স্প্যানিস সংবাদপত্র এল পেরিওডিকো তাদের প্রতিবেদনে তুর্কি ড্রোনের প্রশংসা করে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করে। এ প্রতিবেদনের লেখক বলেছেন, তুরস্কের জঙ্গি ড্রোনগুলো আসাদ বাহিনীর আক্রমণকে মাত্র কয়েক দিনের মধ্যে প্রতিহত করেছে। এ প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে, তুরস্কের ড্রোনগুলো লিবিয়ার যুদ্ধবাজ নেতা খলিফা হাফতারকে বাধ্য করেছে যুদ্ধ-বিরতি চুক্তিতে সই করতে। এর মাধ্যমে যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশটিতে সঙ্ঘাত থেমে যায়। কয়েক ডজন রাশিয়ান বিমান প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংস হয়েছে এ ড্রোনের মাধ্যমে। এছাড়াও বিপুল সংখ্যক ট্যাংক ও কামান ধ্বংস করে এ ড্রোনগুলো। তুরস্কে সাফল্যের পিছনে এ ড্রোনগুলোই ছিল গোপন অস্ত্র। এ ড্রোনগুলো যুদ্ধের প্রধান অস্ত্র হিসেবে প্রমাণিত হয়েছে। এ যুদ্ধগুলোতে ড্রোনের চাতুর্যপ‚র্ণ ব্যবহার হয়েছে বলেও বর্ণানা করা হয়েছে এ নিবন্ধে। নাভার্রা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর মিচেল টানছুম বলেন, ‘তুরস্কের এ ড্রোনব্যবস্থা খুবই কার্যকর কারণ তারা নিখুঁত ভাবে আঘাত হানতে পারে এমন ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা (গাইডেড প্রজেক্টাইল) ব্যবহার করে। এছাড়া এ ড্রোনগুলোতে ইলেকট্রনিক যুদ্ধ ব্যবস্থাও সংযুক্ত করা হয়েছে। এ রিপোর্টে এ কথাও বলা হয় যে কিভাবে তুরস্কের বায়রাকতার টিবি-২ ড্রোন কারাবাখ যুদ্ধে আজারবাইজানকে ব্যাপক সাফল্য এনে দিয়েছিল। এ প্রতিবেদন সমাপ্ত করা হয় এ কথা বলে যে ড্রোনগুলোকে তুরস্ক এমন দক্ষতার সাথে ব্যবহার করেছে যে এর মাধ্যমে প্রচলিত যুদ্ধের ধারণাই বদলে গেছে। তুরস্কের ড্রোন ব্যবহারের কৌশল সমগ্র বিশ্বব্যাপী প্রশংসা পেয়েছে। এর মাধ্যমে বিভিন্ন দেশ উদ্বুদ্ধ হয়েছে তাদের নিরাপত্তা ব্যাবস্থার কৌশলকে তুরস্কের সা¤প্রতিক সাফল্যের আলোকে পুনর্র্নিমাণ করার জন্য। সিরিয়া, লিবিয়া ও নাগরনো-কারাবাখ যুদ্ধের গতি-প্রকৃতি বদলে দেয়ার ক্ষেত্রে তুরস্কের সামরিক কৌশলের সফলতার কারণেই অন্য দেশগুলো এ দেশটিকে অনুসরণ করছে বলে বিশ্লেষকরা মন্তব্য করেছেন। তুরস্কের এ বায়রাকতার টিবি-২ জঙ্গি ড্রোন উদ্ভাবন ও উৎপাদন করেছে তুরস্কের প্রতিরক্ষা কোম্পানি বায়কার টেকনোলজি। তুরস্কের সেনাবাহিনী এ ডোন ২০১৫ সাল থেকে ব্যবহার করছে। ইয়েনি সাফাক।

 



 

Show all comments
  • Shahebali Shaikh ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৫ পিএম says : 0
    আমার মনে হচ্ছে আল্লাহ এরদোয়ানের ভিতরে মুসলমানদের রক্ষার জন্য ক্ষমতা দান করে দুনিয়াতে পাঠিয়েছেন।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Ismail Hossain Rakib ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৬ পিএম says : 0
    মুসলমান দেশ, আল্লাহ আরও এগিয়ে যাক দোয়া রইলো
    Total Reply(0) Reply
  • Nasir Darzi ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৬ পিএম says : 0
    সকল মুসলিম রাষ্ট্র গুলির তুরস্কের সাথে ঐক্যবদ্ধ হওয়া উচিত কারণ আমেরিকার কুনজর পড়েছে তুরস্কের প্রতি
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Hasanur Rahman ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৬ পিএম says : 0
    এক্ষেত্রে সাবমেরিন ড্রোন সবচেয়ে বেশি কার্যকর হবে বলে মনে হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • Jubayer Ahmed ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৭ পিএম says : 0
    মুসলিম বিশ্বের শাসকগণ তুরস্কের সাথে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করলে মুসলিম বিশ্ব আরো এগিয়ে যাবে সন্দেহ নেই। এবার হয়তো মার্কিনীরা তুরস্কের উপর কু নজর দিতে পারে, মহান আল্লাহ তাঁদের শত্রুর কু নজর থেকে হেফাজত করুন। তুরস্কের রাষ্ট্রপতির সুস্থতা সহ নেক হায়াত কামনা করি।
    Total Reply(0) Reply
  • S M Zaheed Anwar ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৭ পিএম says : 0
    কোন সন্দেহ নেই তুরস্কই সবদিক দিয়ে ভারসাম্য পূর্ন সুপার পাওয়ার হিসেবে আবির্ভুত হতে যাচ্ছে।
    Total Reply(0) Reply
  • কবি কথাসাহিত্যিক মামুনুর রশিদ ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৮ পিএম says : 0
    মুসলিম ঐতিহ্য ফিরে পেতে হলে তুরস্ককে ধৈর্য ধরতে হবে। এবং নিজেদের সামরিক শক্তি দ্রুতগতিতে বিশ্বের প্রথম কাতারে আসতে হবে।তারপর শক্তি পর্দশন করলে ভাল করবে
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammad Farook Hossain ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০৮ পিএম says : 0
    Go ahead, Turkey
    Total Reply(0) Reply
  • Fahad ২৪ এপ্রিল, ২০২১, ১১:২৯ এএম says : 0
    I think turkey will go ahead with new developed techanology. I wish turkey success as a muslim country.
    Total Reply(0) Reply
  • Md.Shamsuzzaman ২৫ এপ্রিল, ২০২১, ৩:৩৬ পিএম says : 0
    মুসলিম বিশ্বের শাসকগণ তুরস্কের সাথে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করলে মুসলিম বিশ্ব আরো এগিয়ে যাবে সন্দেহ নেই। এবার হয়তো মার্কিনীরা তুরস্কের উপর কু নজর দিতে পারে, মহান আল্লাহ তাঁদের শত্রুর কু নজর থেকে হেফাজত করুন। তুরস্কের রাষ্ট্রপতির সুস্থতা সহ নেক হায়াত কামনা করি। Allahuma amin
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ড্রোন


আরও
আরও পড়ুন