Inqilab Logo

সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০২ কার্তিক ১৪২৮, ১০ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

কোয়েটায় বিস্ফোরণের সময় হোটেলে ছিলেন না চীনা রাষ্ট্রদূত

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ এপ্রিল, ২০২১, ৬:১৪ পিএম

পাকিস্তানের কোয়েটায় সেরিনা হোটেলে বুধবারের প্রাণঘাতী বিস্ফোরণটি একজন আত্মঘাতী হামলাকারী চালিয়েছিল বলে পুলিশের পক্ষ থেকে বৃহস্পতিবার নিশ্চিত করা হয়েছে। চিকিৎসা চলাকালীন আহত ১২ জনের মধ্যে একজনের মৃত্যু হওয়ার মোট মৃতের সংখ্যা পাঁচজনে দাঁড়িয়েছে।

চীনের কূটনৈতিক মিশন নিশ্চিত করেছে যে, বোমা হামলার ঘটনা যেদিন ঘটেছিল, রাষ্ট্রদূত নং রং সেদিন কোয়েটায় সফররত একটি প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছিলেন। তবে তিনি স্পষ্ট করে বলেছেন যে, হতাহতের মধ্যে কোনও চীনা নাগরিক নেই। হামলাকারী বিলাসবহুল ফোর স্টার মানের হোটেলটির পার্কিংয়ে বোমাযুক্ত একটি গাড়ির বিস্ফোরণ ঘটায়। কাউন্টার টেররিজম ডিপার্টমেন্টের (সিটিডি) এক কর্মকর্তা বলেছেন, সেখান থেকে সংগ্রহ করা ফরেনসিক প্রমাণ নিশ্চিত করেছে যে এটি একটি আত্মঘাতী হামলা।

এক্সপ্রেস ট্রিবিউনকে একজন বিস্ফোরক বিশেষজ্ঞ বলেন, ‘গাড়িটিতে ৮০ থেকে ৯০ কিলো সি-ফোর বিস্ফোরক বহন করা হচ্ছিল। সর্বাধিক ক্ষতি করার প্রয়াসে ডিভাইসটিতে বল বিয়ারিংও ব্যবহার করা হয়েছিল।’ হামলাকারী লাশের অংশগুলি পাওয়া গেছে, যা পরে তাকে সনাক্ত করার জন্য সিভিল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন। একজন সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা বলেছেন, ‘বোমা হামলার তদন্তের জন্য সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা ও অন্যান্য সংস্থার কর্মীদের সমন্বয়ে একটি যৌথ তদন্ত দল গঠন করা হয়েছে।’ তিনি আরও জানান, হতাহতদের মধ্যে কাউন্টার-টেররিস্ট ফোর্সের এক কর্মকর্তা সুজাত ওবাসী এবং হোটেলটিতে মোতায়েন করা একটি বেসরকারী সুরক্ষা সংস্থার দু’জন গার্ডও রয়েছেন।

এদিকে, চীন এই সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে ‘দুর্ভাগ্যজনক ক্ষতিগ্রস্থদের প্রতি সমবেদনা এবং আহতদের প্রতি সমবেদনা’ প্রকাশ করেছে। ইসলামাবাদে অবস্থিত চীনের দূতাবাস এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘পাকিস্তানে চীনের রাষ্ট্রদূত নং রং একই দিন কোয়েটায় একটি সফরে একটি প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছিলেন। আক্রমণ যখন হয়েছিল, তখন চীনা প্রতিনিধিরা হোটেলে ছিল না।’ এখনও অবধি আক্রমণে চীনা নাগরিকের হতাহতের কোনও খবর পাওয়া যায়নি বলে বিবৃতিতে আরও জানানো হয়। সূত্র: এক্সপ্রেস ট্রিবিউন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পাকিস্তান-চীন


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ