Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৩ জুন ২০২১, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ০১ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

জয়পুরহাটে গরু চুরির অপবাদে রিকশাচালকের পায়ে পেট্রোল ঢেলে আগুন দিয়ে নির্যাতন

জয়পুরহাট জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৫ এপ্রিল, ২০২১, ৪:৪৮ পিএম

জয়পুরহাটেএক ইউপি সদস্য গরু চুরির অপবাদ দিয়ে তোতা মিয়া (৩০) নামে এক রিকশাচালকের দুই পায়ে পেট্রোল ঢেলে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বর্তমানে সে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কাতড়াচ্ছে।

এ ঘটনায় জড়িত ওই ইউপি সদস্যকে পুলিশ গ্রেফতার করে রোববার দুপুরে জেল হাজতে পাঠিয়েছে। শনিবার (২৪ এপ্রিল) রাত ১০টার দিকে সদর উপজেলা বম্বু ধারকী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।ভুক্তভোগী তোতামিয়া সদর উপজেলার বম্বু ইউনিয়রেন ধারকী গ্রামের মৃত তয়ের মিয়া ছেলে।


আটককৃত ইউপি সদস্যের নাম রফিকুল ইসলাম (৫০)। সদর উপজেলার বম্বু ইউনিয়ন পরিষদের ৭ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য ও ধারকী গ্রামের মৃত আবদুল করিমের ছেলে।

ভুক্তভোগী ও পুলিশ জানায়, শুক্রবার সদর উপজেলার ধারকী গ্রামের পাথারপাড়া মাঠ থেকে দুপুরে একটি গরু হারিয়ে যায়। ওই ঘটনায় শনিবার রাত আনুমানিক ১০টার দিকে তোতা মিয়াকে বাড়ি থেকে কয়েকজন ডেকে আনেন। এরপর তাকে মাঠের মধ্যে নিয়ে গিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে দুই পায়ে আগুন ও হাতে সিগারেটের ছ্যাঁকা দিয়ে নির্যাতন চালান।

পরে নির্যাতনের কোনো একসময় তোতা মিয়ার জ্ঞান হারালে তাকে জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতালে জরুরি বিভাগে রেখে তারা পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় রোববার দুপুরে ভুক্তভোগীর স্ত্রী ডলি বেগম বাদী হয়ে ইউপি সদস্য রফিকুলসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা করে।ভুক্তভোগীর স্ত্রী ডলি বেগম বলেন, আমার স্বামীকে তারা অন্যায়ভাবে মেরে পায়ে আগুন ও হাতে সিগারেটের ছ্যাঁকা দিয়েছে। আমি তাদের শাস্তি ও বিচার চাই।

জয়পুরহাট সদর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা একেএম আলমগীর জাহান বলেন, এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত মর্মে বম্বু ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য রফিকুল ইসলামকে আটক করা হয়েছে এবং দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে আরও যারা জড়িত আছেন, তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নির্যাতন


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ