Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৪ আষাঢ় ১৪২৮, ০৬ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনায় দুস্থ অসহায় ও প্রতিবন্ধীরা পেল মানবিক সহায়তা

কুমিল্লা থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩ মে, ২০২১, ২:৩০ পিএম

একদিকে করোনা মহামারি, আরেকদিকে চলছে রোজা, সামনে ঈদুল ফিতর। দুস্থ, অসহায়, দরিদ্র প্রতিবন্ধীদের জন্য এটি একটি কঠিন সময়। আর এমনি পরিস্থিতিতে সরকারি ব্যবস্থাপনার বাইরে এসব মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছেন অনেক সংগঠন, অনেক ব্যক্তি। কুমিল্লায় হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশন নামে একটি প্রতিষ্ঠান প্রায় ১৭ বছর ধরে বিভিন্ন বয়সী ৭৫ হাজারের বেশি স্বল্প আয়ের ও হতদরিদ্র মানুষকে বিনাখরচে হার্টের চিকিৎসাসেবা দিয়ে যাচ্ছে।এর পাশাপাশি গত বছর করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঘিরে লকডাউন শুরুর পর থেকে সংগঠনটি অসহায় হতদরিদ্রদের মাঝে সাধ্যমত মানবিক সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে।
এবারে করোনা মহামারির এই সময়ে ও ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনায় অসহায়, দুস্থ ও প্রতিবন্ধীদের মাঝে হুইলচেয়ার, সেলাইমেশিন ও খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।
সোমবার (৩ মে) সকাল ১১টা থেকে কুমিল্লা নগরীর বাদুরতলা শিশুমঙ্গল সড়কে প্রতিষ্ঠানটির কার্যালয় থেকে ১২০জন অসহায় দুস্থের মাঝে জনপ্রতি ১৫ কেজির একটি করে খাদ্যসামগ্রীর ব্যাগ বিতরণ করা হয়। খাদ্যসামগ্রীর মধ্যে ছিল- দুই কেজি পোলাও চালসহ দশ কেজি চাল, এক কেজি ডাল, এক লিটার ভোজ্যতেল, এক কেজি পেঁয়াজ, এক কেজি চিনি, এক কেজি সেমাই এবং আধা কেজি গুড়ো দুধ । এছাড়াও প্রতিবন্ধীদের মাঝে ১৯টি হুইলচেয়ার ও দুস্থ নারীদের মাঝে দশটি সেলাইমেশিন বিতরণ করা হয়।
হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশন কুমিল্লার সভাপতি বিশিষ্ট হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ডা. তৃপ্তীশ চন্দ্র ঘোষ বলেন, করোনা মহামারীর ভয়াবহ দুর্যোগকালে অসহায় মানুষের প্রতি মানবিক সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেয়ার জন্য বর্তমানে আমেরিকা প্রবাসী বাংলাদেশী বংশদ্ভুত চিকিৎসক দম্পতি ডা. মিনহাজ করিম (কে-৪৩), ডা. আনজুম করিম এবং হুইলচেয়ার প্রদান ও এই মানবিক কাজে মূল সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করার জন্য আমেরিকা প্রবাসী ডা. পারভেজ করিমকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।
মানবিক চিকিৎসক ডা. তৃপ্তীশ আরও বলেন, হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে আমরা প্রাথমিকভাবে চারটি সেলাই মেশিন দিয়ে সমাজসেবা কার্যালয়ের প্রত্যক্ষ তত্বাবধানে দুস্থ নারীদের কল্যাণে একটি সেলাই প্রশিক্ষন কেন্দ্র চালু করি। যার মাধ্যমে এই অসহায় নারীরা স্বাবলম্বী হয়ে নিজেদের পরিবারের ভরণপোষনের ব্যবস্থা নিজেরাই করতে পারছে। আমরা শুধু মানুষকে সাহায্য দিয়ে পরনির্ভরশীল করে রাখতে চাইনা বরং তাদেরকে স্বাবলম্বী করে গড়ে তুলতে চাই এবং সেই লক্ষ্যে সমাজের দানশীল ব্যক্তিবর্গকেও এগিয়ে আসার আহবান জানাচ্ছি।
খাদ্যসামগ্রী, হুইলচেয়ার, সেলাইমেশিন বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন হার্টকেয়ার ফাউন্ডেশনের সহ-সভাপতি ডা. মল্লিকা বিশ্বাস, কোষাধ্যক্ষ বীর মুক্তিযোদ্ধা কমরেড আনোয়ার হোসেন ও সদর উপজেলা প্রতিবন্ধী উন্নয়ন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মিসেস রায়হান রহমান হেলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ