Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৪ জুন ২০২১, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ০২ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

বগুড়ায় মাদরাসার প্রিন্সিপালের খুনিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে

বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ মে, ২০২১, ১২:০১ এএম

বগুড়ায় মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক মাওলানা মোজাফফর হোসেনের খুনিদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। প্রকাশ্যে মাদরাসার শিক্ষককে হত্যার ঘটনায় দেশের সচেতন মহল উদ্বিগ্ন। খুনিচক্র দেশ জাতি ও মানবতার দুশমন। বগুড়ায় মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা মাওলানা মোজাফফর হোসেনকে গুলি করে হত্যার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ এসব কথা বলেন।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ : বগুড়ার নিশিন্দারা কারবালা এলাকায় আল জামিয়া আল আরাবিয়া হেদায়া কওমি হাফেজী মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক মাওলানা মোজাফফর হোসেন নাটোর সড়কের জোড়া বীর গ্রাম এলাকায় ঘাতকের পিস্তলের গুলিতে নিহত হওয়ার ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মহাসচিব প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ।

গতকাল বুধবার এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, এভাবে প্রকাশ্যে একজন আলেমে দ্বীনকে প্রকাশ্যে দিবালোকে হত্যার ঘটনা প্রমাণ করে দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি এখন কোনো পর্যায়ে। এভাবে প্রকাশ্যে মাদরাসার শিক্ষকদের হত্যায় দেশের সচেতন মহল উদ্বিগ্ন। এতে দেশে নতুন করে সঙ্কট সৃষ্টি করবে। তিনি বলেন, একদিকে মাদরাসা নিয়ে প্রশাসনের নানামুখি হয়রানি অপরদিকে একজন মাদরাসার প্রিন্সিপালকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা কোনোভাবেই মেনে নেয়া যায় না। তিনি হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িতদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ : জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শায়খুল হাদিস মাওলানা মনসুরুল হাসান রায়পুরী ও মহাসচিব শায়খুল হাদিস মাওলানা ড. গোলাম মহিউদ্দিন ইকরাম গতকাল বুধবার এক বিবৃতিতে বগুড়ার মাদরাসার প্রিন্সিপাল হজরত মাওলানা মোজাফফর হোসাইনের হত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

নেতৃদ্বয় বিবৃতিতে আরও বলেন, একজন আলেমকে প্রকাশ্যে দিবালোকে গুলি করে হত্যা করা আইয়ামে জাহিলিয়াতকেও হার মানিয়েছে। হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়ার জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবি জানান তারা। তারা আরো বলেন, খুনিচক্র যেই হোক না কেন, এরা মানবতার দুশমন দেশ-জাতির দুশমন। খুনিদের আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তি দিয়ে জননিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ