Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন ২০২১, ১০ আষাঢ় ১৪২৮, ১২ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

এএফসিকে মালদ্বীপের অনুরোধ!

সব খেলোয়াড় নিয়েই মালে যাবে বসুন্ধরা

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৮ মে, ২০২১, ১২:০১ এএম

এএফসি কাপের ‘ডি’ গ্রুপের খেলা পিছিয়ে দেয়ার জন্য এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশনকে (এএফসি) অনুরোধ করেছে ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন অফ মালদ্বীপ (এফএএম)। কারণ ভারতের মতো মালদ্বীপেও দিন দিন বাড়ছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ। তাই ওই দেশের সরকার দিনে সব কার্যক্রম চালু রাখলেও সম্প্রতি রাতের বেলা কারফিউ জারি করেছে। অন্যদিকে গত পরশু মালদ্বীপের সাবেক রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ নাশিদ এক বিস্ফোরণে আহত হয়েছেন। ঘটনাটি নিয়ে বর্তমানে অস্থিরতা বিরাজ করছে গোটা মালদ্বীপ জুড়ে। সবকিছু মিলিয়ে এএফসি কাপের মতো বড় টুর্নামেন্ট আয়োজনের পরিস্থিতি এখন নেই মালদ্বীপে। তাই টুর্নামেন্টের খেলা পিছিয়ে এএফসিকে অনুরোধ জানিয়েছে এফএএম। ১৪ থেকে ২০ মে পর্যন্ত মালেতে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা এএফসি কাপের গ্রুপ পর্বের খেলা। যেখানে ‘ডি’ গ্রুপে খেলছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। করোনার কারণে এমএফএফ টুর্নামেন্ট পিছিয়ে দিতে বললেও তাদের এই আবেদনে সাড়া দেয়নি এএফসি। ফলে নির্ধারিত সময়েই মাঠে গড়াবে এএফসি কাপের খেলাগুলো- এটা প্রায় নিশ্চিত। তাই হাফ ছেড়ে বেঁচেছে বসুন্ধরা কিংস।
করোনা মহামারির কারণে এএফসি কাপে গতবার মাত্র একটি ম্যাচ খেলেছিল বসুন্ধরা। পরে বাতিলই হয়ে যায় ওই আসরটি। এই মৌসুমে আর সেই ভাগ্যবরণ করতে হচ্ছে না তাদের। এশিয়ান ক্লাব ফুটবলের দ্বিতীয় সেরা আসরের ‘ডি’ গ্রুপের ম্যাচ সময়মতোই মাঠে গড়াচ্ছে। এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশনের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে ফুটবল বিষয়ক ওয়েবসাইট ‘গোল ডটকম’।
ভারতের লকডাউন টুর্নামেন্টে সুবিধাজনক অবস্থান তৈরী করেছে বসুন্ধরার জন্য। কারণ প্রধান দুই বিদেশির অনুপস্থিতি ও অনুশীলন ঘাটতি নিয়েই মালদ্বীপ যাচ্ছে প্রতিদ্ব›দ্বী মোহনবাগান । ভারতে আসতে না পারা দলটির ফিজিয়ান স্ট্রাইকার রয় কৃষ্ণ ও অস্ট্রেলিয়ান স্ট্রাইকার ডেভিড উইলিয়ামসকে ছাড়াই মালদ্বীপে যাবে তারা। এমনটাই জানিয়েছে গোল ডটকম। তাদের সেরা একাদশের গোলরক্ষক অরিন্দম ভট্টাচার্যের মা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। তাই অরিন্দম এএফসি কাপে দলের সঙ্গী হবেন কি না তা নিয়েও রয়েছে অনিশ্চয়তা। গত মার্চের মাঝমাঝিতে শেষবার মাঠে নেমেছিল মোহনবাগান। এরপর থেকে মাঠের বাইরে তারা। গত ২৬ মার্চ থেকে অনুশীলন শুরুর কথা থাকলেও করোনা মহামারির কারণে তা স্থগিত হয়ে যায়। দলের অন্য দুই বিদেশি স্প্যানিশ ডিফেন্ডার তিরি ও আইরিশ মিডফিল্ডার কার্ল ম্যাকহিউকে পাওয়া নিয়েও রয়েছে অনিশ্চয়তা। তবে কোচ অ্যান্থনিও হাবাস স্পেন থেকে মালদ্বীপে দলের সঙ্গে যোগ দেবেন। এসব বিবেচনায় এএফসিকে ‘ডি’ গ্রুপের ম্যাচগুলো স্থগিতের আবেদন জানিয়েছিল মোহনবাগানও। কিন্তু তাতে লাভ হয়নি। ফলে ভাঙাচোরা দল এবং অনুশীলনের ঘাটতি নিয়েই ১০ মে মালদ্বীপে পা রাখার কথা মোহনবাগানের।
এদিকে নিজেদের স্কোয়াডের সব খেলোয়াড় নিয়েই মালদ্বীপ যাবে বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। টুর্নামেন্টে খেলার আগে দু’বার করোনাভাইরাস পরীক্ষা করানো হবে দলের ফুটবলারদের। ঢাকা ছাড়ার আগে একবার এবং মালদ্বীপের রাজধানী মালেতে গিয়ে আরেকবার করোনা পরীক্ষা হবে খেলোয়াড়দের। কেউ আক্রান্ত হলে যাতে সমস্যা না হয়, সে কারণেই দলের সবাইকে মালদ্বীপ নিয়ে যাচ্ছে বসুন্ধরা কিংস। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামীকাল মালদ্বীপের উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়বে বিপিএলের কর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।
বসুন্ধরা কিংসের মিডিয়া ম্যানেজার আহমেদ শায়েক জানিয়েছেন, সদ্য বাংলাদেশের নাগরিকত্ব পাওয়া এলিটা কিংসলের পাসপোর্ট না থাকায় তাকে বাদ দিয়ে ক্লাবের নিবন্ধিত ২৬ ফুটবলারকে মালদ্বীপে নিয়ে যাবেন স্প্যানিশ কোচ অস্কার ব্রুজন। কোচিং স্টাফ ও টিম ম্যানেজমেন্ট মিলে যাচ্ছেন আরও ২০জন। সবমিলিয়ে বসুন্ধরা কিংসের ৪৬ জনের একটি বহর মালদ্বীপ যাচ্ছে।
টুর্নামেন্টের ‘ডি’ গ্রুপে বসুন্ধরার তিন প্রতিপক্ষের দু’টি ভারতের মোহনবাগান ও মালদ্বীপের মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাব। তৃতীয় দল চুড়ান্ত হবে ১১ মে ভারতের বেঙ্গালুরু এফসি ও মালদ্বীপের ঈগলস ক্লাবের মধ্যেকার প্লে-অফ ম্যাচের পর।
মালেতে ১৪ মে টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে বসুন্ধরার প্রতিপক্ষ স্বাগতিক মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাব। ১৭ মে বেঙ্গালুরু এফসি বা ঈগলস ক্লাবের বিপক্ষে খেলার পর বসুন্ধরা কিংস নিজেদের তৃতীয় ম্যাচ খেলবে ২০ মে। যে ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ ভারতের জায়ান্ট মোহনবাগান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মালদ্বীপ


আরও
আরও পড়ুন