Inqilab Logo

বুধবার, ০৪ আগস্ট ২০২১, ২০ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৪ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

এবার কলকাতার গ্যাংস্টারের ভূমিকায় মোশাররফ করিম

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ মে, ২০২১, ৪:৪৮ পিএম

সম্প্রতি দেশের জনপ্রিয় অভিনেতা মোশাররফ করিম অভিনীত কলকাতার ‘ডিকশিনারি’ সিনেমাটি নেপাল আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের সেরা ইন্টারন্যাশনাল ফিচার ফিল্মের পুরস্কার পেয়েছে। সেই রেশ কাটতে না কাটতেই কলকাতায় আরও একটি সিনেমায় যুক্ত হলেন মোশাররফ করিম। সিনেমাটি পরিচালনা করছেন ব্রাত্য বসু। খবরটি নিশ্চিত করেছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

নতুন সিনেমার নাম চূড়ান্ত না হলেও বিষয়টি পাকা করে ফেলেছেন ব্রাত্য। এবারের সিনেমা হবে পলিটিক্যাল থ্রিলার। বিষয় রাজনীতি ও সমাজব্যবস্থা। তা-ও সত্য ঘটনা অবলম্বনে। হুব্বা শ্যামলের জীবনী নিয়ে হবে এ সিনেমা। মোশাররফকে নিয়ে ডিকশ্‌নারি সিনেমাটিও পরিচালনা করেছিলেন ব্রাত্য।

সিনেমাটির বিষয়ে ব্রাত্য বসু বলেন, ‘এই ছবিতে আমি বিশ্বায়নের যুগে বাংলার রাজনীতির পাল্টে যাওয়ার পটচিত্রটা তুলে ধরতে চাই।’

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, হুগলির দাউদ ইব্রাহিম নামে পরিচিত হুব্বা শ্যামল। নব্বইয়ের দশকের শেষ দিকে তার নাম ছড়ায়। এই গ্যাংস্টার হুগলি জেলার অন্ধকার জগতে সর্বময় ক্ষমতার অধিকারী। খুন, অপহরণ, মাদক পাচারের ৩০টি মামলা ছিল তার বিরুদ্ধে। পুলিশের হাতে তিনবার গ্রেপ্তার হয়েও জামিনে ছাড়া পান। ২০০৫ সালে সল্ট লেক থেকে হুব্বার অতিনাটকীয় গ্রেপ্তারের কথা আজও অনেকেই মনে রেখেছেন। ৭০টি মোবাইল ফোন ব্যবহার করত হুব্বা। এই ডন ২০০৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে স্বাধীনভাবে ভোটেও দাঁড়িয়েছিলেন। পরে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নেন তিনি। ২০১১ সালে বেশ কিছুদিন নিখোঁজ থাকার পর বৈদ্যবাটির খালে হুব্বা শ্যামলের পচা-গলা দেহ ভেসে ওঠে। গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয়েছিল তার।

ক্রাইমের সঙ্গে কমেডিও থাকবে সিনেমায়। দেশের জনপ্রিয় অভিনেতা মোশাররফ করিম সিনেমাটিতে মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করবেন । মোশাররফ করিমের পাশাপাশি এতে পৌলোমী বসু’সহ থাকবেন নাট্যজগতের আরও কয়েক জন শিল্পী। শিগগিরই সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে বলেও জানা গেছে।

উল্লেখ্য, ব্রাত্য বসু সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনে জয়ী হয়ে শিক্ষামন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মোশাররফ করিম

৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ