Inqilab Logo

সোমবার, ০২ আগস্ট ২০২১, ১৮ শ্রাবণ ১৪২৮, ২২ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

নোয়াখালীর সেনবাগে একই পরিবারের ৫ জনকে কুপিয়ে জখম, চিকিৎসাধীন একজনের মৃত্যু

নোয়াখালী ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২২ মে, ২০২১, ১২:০৮ পিএম

সেনবাগ উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ একই পরিবারের ৫জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে নুরুল হুদা বাবুলের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেলে স্থানান্তর করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। এ ঘটনায় পুলিশ তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

শনিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান নুরুল হুদা বাবুল। নিহত নুরুল হুদা মধ্য মোহাম্মদপুর গ্রামের আলী মিয়া রাজের বাড়ীর মোশারফ হোসেনের ছেলে। গ্রেপ্তারকৃতরা হচ্ছেন, একই বাড়ীর জামাল উদ্দিন সুমন, কামাল হোসেন ও অন্তর।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মধ্য মোহাম্মদপুর গ্রামের আলী মিয়া রাজের বাড়ীর মোশারফ হোসেন গং ও আব্দুর রব গং’এর মধ্যে জায়গা জমি নিয়ে পূর্ব বিরোধ ছিল। গত ১৯ মে বুধবার সন্ধ্যায় আব্দুর রবের নাতী অন্তর একই বাড়ীর মোশারফের ছেলে শরিয়ত উল্যার বসত ঘরের পাশে থাকা গাছ থেকে জামরুল ফল পাড়া অবস্থায় গাছের ওপরের অংশ ভেঙে শরিয়তের ঘরের ওপর পড়ে। এতে ঘরে ঘুমিয়ে থাকা শরিয়ত উল্যাহ বের হয়ে এ ঘটনার প্রতিবাদ করেন। এদে ক্ষিপ্ত হয়ে আব্দুর রবের ছেলে জামাল উদ্দিন সুমন, নূর নবী ও নাতী অন্তর চাইনিজ কুড়াল, লোহাররড ও দেশিয় অস্ত্র নিয়ে শরিয়তের ওপর হামলা চালায়। এসময় শরীতকে বাঁচাতে তার ভাই নুরুল হুদা বাবুল, মর্জিনা আক্তার, কমলা বেগম ও নাছিমা আক্তার এগিয়ে আসলে হামলাকারীরা তাদের সবাইকে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে এবং কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে সেনবাগ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। তাদের মধ্যে নুরুল হুদা বাবুলের অবস্থার অবনতি হলে প্রথমে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে, পরে আরও অবনতি হলে বুধবার রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শনিবার ভোরে ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

সেনবাগ থানার ওসি আব্দুল বাতেন মৃধা বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, হামলার ঘটনায় নিহতের বাবা মোশারফ হোসেন বাদী হয়ে ৮জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। ওই মামলাটি এখন হত্যা মামলা হবে। অপর আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে বলেও জানার ওসি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কুপিয়ে জখম


আরও
আরও পড়ুন