Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী এখন নিউইয়র্কে

প্রকাশের সময় : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

বিশেষ সংবাদদাতা : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশন যোগদানের লক্ষ্যে কানাডার মন্ট্রিয়েল থেকে গত রোববার সন্ধ্যায় নিউইয়র্ক পৌঁছেছেন।
এয়ার কানাডার একটি ফ্লাইট প্রধানমন্ত্রী ও তার সফর সঙ্গীদের নিয়ে নিউইয়র্কের লা গার্ডিয়া বিমান বন্দরে বিকেল তিনটায় (নিউইয়র্ক সময়) অবতরণ করে।
বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জিয়াউদ্দিন, রাষ্ট্রদূত ও জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি মাসুদ বিন মোমেন এবং প্রবাসী বাংলাদেশীরা। বিমানবন্দরের বাইরে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান।
বিমানবন্দরে স্বাগত জানানোর পর একটি মোটর শোভাযাত্রাসহ প্রধানমন্ত্রীকে নিউইর্য়কের ম্যানহাটনে হোটেল ওয়াল্ডোর্ফ এস্টোরিয়ায় নিয়ে যাওয়া হয়। ২১ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের ৭১তম অধিবেশনের সাধারণ সভায় যোগদানসহ অন্যান্য কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের সময় প্রধানমন্ত্রী এই হোটেলে অবস্থান করবেন।
নিউইয়র্কে প্রধানমন্ত্রীর আনুষ্ঠানিক কর্মসূচি শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সুচির সাথে বৈঠকের মধ্য দিয়ে।
একই দিনে শেখ হাসিনা জাতিসংঘ সদর দফতরে উদ্বাস্তু ও অভিবাসনসংক্রান্ত সাধারণ পরিষদের উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে ভাষণ দেবেন এবং যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাংলাদেশের ব্যবসা-বাণিজ্যের বিষয় তুলে ধরবেন বলে সংশ্লিষ্টরা জানান এবং জাতিসংঘের প্রধান কার্যালয়ে বিজনেস কাউন্সিল ফর ইন্টারন্যাশনাল আন্ডারস্টান্ডিংয়ে (বিসিআইইউ) বৈঠকে যোগদান করবেন। প্রধানমন্ত্রী ২০ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন। তিনি ২১ সেপ্টেম্বর বিকেলে জেনারেল অ্যাসেম্বলি হলে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনের সাধারণ আলোচনায় বক্তব্য রাখবেন।
তিনি ‘গ্লোবাল কমপ্যাক্ট ফর সেফ, রেগুলার অ্যান্ড অর্ডারলি মাইগ্রেশন : টেকসই উন্নয়ন বিষয়ক এজেন্ডা-২০৩০’ বাস্তবায়ন এবং অভিবাসীদের মানবাধিকারের প্রতি পূর্ণ শ্রদ্ধা অর্জন বিষয়ক রাউন্ড টেবিল-৫-এ যৌথভাবে সভাপতিত্ব করবেন। তিনি পরে হোটেল ম্যারিয়ট ইস্টসাইডে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে আয়োজিত কাউন্টার টেররিজমের ওপর এশিয়ান লিডার্স ফোরামের বৈঠকে যোগ দেবেন।
প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘ সদর দফতরের কনফারেন্স রুম-২তে সাউথ সাউথ বিষয়ক জাতিসংঘ অফিসে বাংলাদেশ আয়োজিত পাবলিক সার্ভিস ডেলিভারিতে স্কেলিং আপ ইনোভেশনে সাউথ সাউথ অ্যান্ড ট্রায়াঙ্গুলার কো-অপারেশন বিষয়ক এক বৈঠকে যোগ দেবেন।
শেখ হাসিনা মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা আয়োজিত উদ্বাস্তুবিষয়ক এক বৈঠকে যোগ দেবেন বলে আশা করা হচ্ছে। এ সময় তিনি জাতিসংঘ সদর দফতরে বারাক ওবামা আয়োজিত মধ্যাহ্ন ভোজ সংবর্ধনায় যোগ দেবেন।
২১ সেপ্টেম্বর সুইডিস প্রধানমন্ত্রী স্টিফেন লো ভেশ আয়োজিত ডিসেন্ট ওয়ার্ক অ্যান্ড ইনক্লুসিভ গ্রোথ বিষয়ক সোশ্যাল ডায়ালগসংক্রান্ত গ্লোবাল ডিলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী যোগ দেবেন। এ দিন তিনি জাতিসংঘের প্রধান কার্যালয়ে মহাসচিব বান কি মুন আয়োজিত এক ভোজসভায় যোগ দেবেন। তিনি জাতিসংঘ সদর দফতরের কনফারেন্স রুমে পানিবিষয়ক উচ্চপর্যায়ের এক প্যানেল বৈঠকে যোগ দেবেন।
শেখ হাসিনা ২১ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কে হোটেল গ্র্যান্ড হায়াতে প্রবাসী বাংলাদেশীদের দেয়া এক সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন এবং ২২ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনে এক সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখবেন।
প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দেয়ার পাশাপাশি মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী অং সান সুচি, সুইস প্রেসিডেন্ট জোহান চেনিডার আম্মান এবং কমনওয়েলথ মহাসচিব প্যাট্রিসিয়া জ্যানেট স্কটল্যান্ড ও ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের (ডবিউইএফ) নিবার্হী চেয়ারম্যান ক্লস শোয়াব এবং বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট জিম ইয়ং কিমসহ বিভিন্ন রাষ্ট্র ও সরকার প্রধানদের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করবেন।
তিনি আগামী ২২ সেপ্টেম্বর সড়ক পথে ভার্জিনিয়ার উদ্দেশে নিউইয়র্ক ত্যাগ করবেন এবং ২৫ সেপ্টেম্বর আমিরেটস এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে দেশের উদ্দেশে ওয়াশিংটন ডিসি’র ডুলেস ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট ত্যাগ করবেন।
শেখ হাসিনাকে বহনকারী ফ্লাইটটি দুবাই হয়ে ২৬ সেপ্টেম্বর বিকেল ৫টা ২০ মিনিটে (বাংলাদেশ সময়) ঢাকায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণের কথা রয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন