Inqilab Logo

বুধবার, ০৪ আগস্ট ২০২১, ২০ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৪ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

গাজা উপত্যকা পুনর্গঠনে ১৪০ কোটি ডলার ব্যয় করেছে কাতার

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৭ জুন, ২০২১, ৬:০১ পিএম

গাজা উপত্যকায় ‘সন্ত্রাসী’ গোষ্ঠীগুলিকে কাতার সমর্থন দিয়ে আসছে বলে দাবি করেছে ইসরাইল। তবে শুক্রবার ইসরাইলের এই দাবি উড়িয়ে দিয়েছেন কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ বিন আবদুলরহমান আল-থানি। এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে সামা নিউজ এজেন্সি।

রাশিয়ার সেন্ট পিটার্সবার্গে অনুষ্ঠিত আর্থিক সম্মেলনের সময় আল-থানি জানিয়েছেন যে, কাতার ২০১২ সাল থেকে গাজা উপত্যকা পুনর্নির্মাণে ১৪০ কোটি ডলার ব্যয় করেছে। কাতারি অর্থ গাজায় ‘সন্ত্রাসবাদী’ গোষ্ঠীগুলিতে যায় বলে ইসরাইল প্রায়শই যে দাবি করে আসছে তা প্রত্যাখান করে আল-থানি বলেন যে, ইসরাইল জানে যে কীভাবে এই অর্থ স্থানান্তরিত হয়। তিনি পুনরুক্তি করে বলেন, কাতার শান্তি অর্জনে সত্যিকারের এবং বিশ্বাসযোগ্য অংশীদার কারণ এটি কোনও বিরোধের সামরিক সমাধানে বিশ্বাসী নয়। কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, দরিদ্র ফিলিস্তিনি পরিবারগুলিকে প্রতি মাসে ১০০ ডলার করে দেয়ার জন্য কাজ করার পরেও কাতার একটি বিকৃতি অপ্রচারের মুখোমুখি হচ্ছে। তিনি নিশ্চিত করেছেন যে, কাতার গাজায় এমনভাবে কাজ চালাচ্ছে যা আন্তর্জাতিক আইনের বিরোধী নয়।

গত বুধবার আল-থানি টুইট করে বলেন, ‘কাতার গাজার পুনর্গঠনের জন্য ৫০ কোটি ডলার সহায্য ঘোষণা করেছে।’ তিনি আরও জানান, ‘আমরা ফিলিস্তিনে আমাদের ভাইদের তাদের স্বাধীন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে ন্যায়বিচার ও স্থায়ী সমাধানে পৌঁছানোর জন্য সমর্থন অব্যাহত রাখব।’ সূত্র: মিডল ইস্ট মনিটর।



 

Show all comments
  • Dadhack ৭ জুন, ২০২১, ৬:৩১ পিএম says : 0
    Whole kafir world and Murtard, munafiq is helping Israel with billion billion dollar and all sort of Sophisticate weapon to kill and destroy Palestinian infrastructure then no body complain but when some country wanted to help then these criminal countries are saying that they are supporting terrorist, but Palestinian people are victim of terrorism for nearly 70 years.
    Total Reply(0) Reply
  • Md Abul Hossain ৭ জুন, ২০২১, ৮:০৫ পিএম says : 0
    ফিলিস্থিন ভাইদের এই কঠিন সময়ে সাহসী পদক্ষেপ নেয়ায় কাতারের প্রতি মুসলিম বিশ্বের সবাই খুশি। এখন সময়ের দাবি আমাদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার এবং খুব দ্রুতই হওয়া উঢিত। আমাদের অনেক ক্ষতি হয়েছে। আমাদের অনঐক্যের সুযোগ নিয়েছে এই যায়নবাদি সরকার। আমাদের জোড় দাবি কোন মুসলিম শাসক আর যেন ভুল না করেন। আপন ভালো পাগলেও বুঝে। আমরা যেন আমাদের নিরীহ মুসলিম ভাইদেরকে নির্মমভাবে জিবন দিতে না হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ মামুন ১১ জুন, ২০২১, ২:৪১ পিএম says : 0
    00 ফিলিস্থিন ভাইদের এই কঠিন সময়ে সাহসী পদক্ষেপ নেয়ায় কাতারের প্রতি মুসলিম বিশ্বের সবাই খুশি। এখন সময়ের দাবি আমাদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার এবং খুব দ্রুতই হওয়া উঢিত। আমাদের অনেক ক্ষতি হয়েছে। আমাদের অনঐক্যের সুযোগ নিয়েছে এই যায়নবাদি সরকার। আমাদের জোড় দাবি কোন মুসলিম শাসক আর যেন ভুল না করেন। আপন ভালো পাগলেও বুঝে। আমরা যেন আমাদের নিরীহ মুসলিম ভাইদেরকে নির্মমভাবে জিবন দিতে না হয়।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কাতার


আরও
আরও পড়ুন