Inqilab Logo

শুক্রবার, ২৯ অক্টোবর ২০২১, ১৩ কার্তিক ১৪২৮, ২১ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

চৌদ্দগ্রামে মাস্ক পরায় যত অনীহা

মো. আকতারুজ্জামান, চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) থেকে | প্রকাশের সময় : ৯ জুন, ২০২১, ১২:০২ এএম

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলায় মহামারি করোনার সময়ে মাস্ক পড়তে অনীহা সাধারণ মানুষের মধ্যে। শুধু সাধারণ মানুষ নয়, মাস্ক ছাড়া চলাচল করছেন প্রশাসনের কর্মকর্তা-কর্মচারীরাও। ফলে চৌদ্দগ্রামে করোনা সংক্রমণ দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা করছেন সচেতন মহল। উপজেলা প্রশাসন দাবি করছেন, অতি শিগগিরই মাস্ক না পড়া ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালতসহ নানা ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
চৌদ্দগ্রাম এইচ জে মডেল সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা সাইফুন নাহার আলপনা জানান, চৌদ্দগ্রামের শহর ও গ্রামাঞ্চলগুলোতে সাধারণ মানুষের মধ্যে এখন মাস্ক পড়তে অনেকটা অনীহা দেখা যাচ্ছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে সাধারণ মানুষকে বাধ্য করার কর্মসূচি হাতে না নিলে সারাদেশের ন্যায় চৌদ্দগ্রামেও করোনা সংক্রমণ দ্রুত ছড়িয়ে পড়বে। চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. হাসিবুর রহমান জানান, দেশে দ্রুত করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে। সাধারণ মানুষকে বেশি বেশি মাস্ক পড়ার জন্য তিনি পরামর্শ দেন। উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাশেদা আখতার জানান, আমি দীর্ঘদিন ধরে লক্ষ্য করছি চৌদ্দগ্রামের সাধারণ মানুষের মধ্যে মাস্ক পড়তে অনীহা দেখা যাচ্ছে। এ বিষয়ে আমি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য কথা বলেছি। তিনি পরামর্শ দিয়ে বলেন, জনগণকে মাস্ক পড়তে আগ্রহ করার জন্য আমাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো স্কাউট ও রোভার স্কাউট রয়েছে। তাদের মাধ্যমে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে মাস্ক পড়তে জনগণকে আগ্রহ করা যেতে পারে। উপজেলা সহকারী কমিশনার ক্ষোভ প্রকাশ করে জানান, বিশে^র বহু উন্নত দেশেও সাধারণ মানুষ মাস্ক পরছে না। আইন প্রয়োগ করে মাস্ক পড়ানো যাবে না। আমাদেরকে আরো সচেতন হয়ে মাস্ক পড়তে হবে। তবেই দেশ থেকে করোনা নির্মূল হবে।
চৌদ্দগ্রাম উপজেলা নির্বাহী অফিসার এস এম মঞ্জরুল হক জানান, শিগগিরই মাস্ক যারা পড়ছে না, ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। যত বেশি সামাজিক দূরত্ব ও মাস্ক পড়বো, করোনা থেকে ততটাই নিরাপদ থাকতে পারবো।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন