Inqilab Logo

বুধবার, ০৪ আগস্ট ২০২১, ২০ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৪ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

চীনে পশু রফতানি বৃদ্ধি পাচ্ছে পাকিস্তানের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১১ জুন, ২০২১, ৫:৫৮ পিএম

পাকিস্তানে গাধার সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে। চলতি অর্থবর্ষ ২০২০-২১ এ পাকিস্তানে গাধার সংখ্যা বৃদ্ধি পেল প্রায় এক লাখ! যার ফলে পাকিস্তানে মোট গাধার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৬ লাখ। গত বছরেও এই সংখ্যা ছিল ৫৫ লাখের আশেপাশে।

পাকিস্তান প্রচুর পরিমাণে গাধা চীনে রফতানি করে। এই গাধার চামড়া সেখানে বিশেষ ওষুধ তৈরিতে ব্যবহৃত হয় বলে জানা গিয়েছে। দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন একটি সমীক্ষা অনুসারে জানাচ্ছে, শুধুমাত্র গাধা নয়, পাকিস্তানে মহিষ, ঘোড়া, ছাগল, ভেড়া ও উট, খচ্চর সহ অন্যান্য পশুর সংখ্যাও বেড়ে গিয়েছে। সূত্র মারফৎ খবর, চীনে এই গাধা রফতানি করে পাকিস্তান প্রচুর অর্থ উপার্জন করে। গাধার চামড়ার চীনে যথেষ্ট কদর রয়েছে। একারণেই পাকিস্তানের থেকে প্রচুর সংখ্যায় গাধা কেনে চীন। যদিও চীনেও প্রচুর পরিমাণে গাধা রয়েছে।

গাধার চামড়া থেকে তৈরি জেলটিনের ঔষধি গুণ রয়েছে। এটি রক্তের কাজ বৃদ্ধি করতে ও প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তুলতে সাহায্য করে। গাধার সংখ্যার দিক থেকে বিচারে পাকিস্তান বিশ্বে তৃতীয় স্থানে রয়েছে। এক্ষেত্রে প্রথম স্থানে রয়েছে চীন। চীনে গাধার চাহিদা এতই বেশি, যে বিজ্ঞানীদের আশঙ্কা একসময় চীন থেকে গাধা বিলুপ্ত হয়ে যেতে পারে। এমনকি সারা বিশ্বের গাধার সংখ্যা কমে যেতে পারে বলেও দাবি করা হয়েছে। একটি সমীক্ষায় বলা হয়েছে, চীনে যদি গাধার সংখ্যা একই থাকে, সেক্ষেত্রে বিশ্বে গাধার সংখ্যা অর্ধেক হয়ে যাবে। চীনের প্রচুর সংখ্যক মানুষ মনে করেন, গাধার চামড়া থেকে তৈরি ওষুধ সর্দি এবং বার্ধক্য রোধে বিশেষ কার্যকর।

সমীক্ষার রিপোর্ট অনুসারে, ২০১৯-২০ -এর তুলনায় ২০২০-২১ সালে পাকিস্তানে পশুর সংখ্যা ১৯ লাখ বৃদ্ধি পেয়েছে। একইসঙ্গে গাধার সংখ্যাও ৫৫ লাখ থেকে বেড়ে হয়েছে ৫৬ লাখ। মহিষের সংখ্যাও চার কোটি দশ লাখ থেকে বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়িয়েছে চার কোটি চব্বিশ লাখ। অর্থনৈতিক সমীক্ষার রিপোর্ট বলছে, পাকিস্তানে মোট পশুর সংখ্যা ২ কোটি ১৩ লাখ ১০ হাজারে এসে দাঁড়িয়েছে। গত বছর এই সংখ্যা ছিল ২ কোটি ৭ লাখ। সূত্র: টিওআই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পাকিস্তান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ