Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৫ আগস্ট ২০২১, ২১ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৫ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

সউদীর ১০ বিলিয়নের প্রকল্প করাচিতে স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ জুন, ২০২১, ১২:০২ এএম

পাকিস্তানের গওয়াদারে ১০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৮ হাজার ৫১৬ কোটি ৫২ লাখ ৯০ হাজার টাকা) ব্যয়ে একটি তেল শোধনাগার এবং পেট্রোকেমিক্যাল কমপ্লেক্স করার প্রস্তাব দিয়েছিল সউদী আরব। সেটি এখন করাচিতে স্থানান্তর করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আরব দেশটি। পাকিস্তানে চীনের বেল্ট এন্ড রোড প্রকল্পের মূল কেন্দ্রস্থল করাচি শহর। এমতাবস্থায় গওয়াদার বন্দর শহরটি মেগা-বিনিয়োগের কেন্দ্র হিসেবে তার গুরুত্ব হারাচ্ছে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। গত ২ জুন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ ও পেট্রোলিয়াম বিষয়ক বিশেষ সহকারী তাবিশ গওহর বলেন, গওয়াদারে তেল শোধনাগার তৈরি করবে না সউদী আরব। তবে করাচির নিকটবর্তী কোনো স্থানে একটি পেট্রোকেমিক্যাল কমপ্লেক্সসহ তেল শোধনাগারটি নির্মাণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। পাকিস্তানে আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে দৈনিক ২ লাখ ব্যারেল উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন আরো একটি তেল শোধনাগার নির্মাণ করা হবে, যোগ করেন তিনি।
এর আগে ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারিতে পাকিস্তান সফরে আসেন সউদী যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। সে সময় প্রকল্পটি নিয়ে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করে সউদী কর্তৃপক্ষ। ওই সময়ে ইসলামাবাদ বৈদশিক মুদ্রার মজুদ হ্রাস নিয়ে সঙ্কটে ছিল। সূত্র : নিক্কেই এশিয়া।



 

Show all comments
  • Mofiz Miah ১৫ জুন, ২০২১, ৫:০৮ এএম says : 0
    পাকিস্তান সৌদির এই বিনিয়োগ থেকে অনেক লাভবান হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • মিরাজ আলী ১৫ জুন, ২০২১, ৫:০৯ এএম says : 0
    ভারতের মতো মুসলিম বিদ্বেষী দেশে বিনিয়োগ করার চেয়ে পাকিস্তানে করা অনেক ভালো।
    Total Reply(0) Reply
  • সাইফুল ইসলাম ১৫ জুন, ২০২১, ৫:১০ এএম says : 0
    আলহামদুলিল্লাহ, সৌদির বিনিয়োগে পাকিস্তানের অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াবে।
    Total Reply(0) Reply
  • নূরুজ্জামান নূর ১৫ জুন, ২০২১, ৫:১০ এএম says : 0
    পাকিস্তানের জন্য শুভ কামনা। মুসলিম দেশগুলোর এভাবেই অপরের উন্নয়নে কাজ করা দরকার।
    Total Reply(0) Reply
  • রুকাইয়া খাতুন ১৫ জুন, ২০২১, ৫:১১ এএম says : 0
    সিল্ক রোডে পাকিস্তান অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অবস্থান দখল করবে। এগিয়ে যাক পাকিস্তানের মানুষ জয় হোক ইমরান খানের
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সউদী আরব


আরও
আরও পড়ুন