Inqilab Logo

সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫ আশ্বিন ১৪২৮, ১২ সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মাগুরা মহম্মদপুরে মসজিদের মধ্যে ঢুকে কুপিয়ে জখম পরে মৃত্যু

মাগুরা থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ জুন, ২০২১, ৯:৪৪ এএম

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের পলাশবাড়ীয়া গ্রামের উত্তর-পূর্ব পাড়া মসজিদের ভিতরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে আলাউদ্দিন ওরফে (পাখি মাস্টার) (৫৫) নামের এক স্কুল শিক্ষককে মসজিদের মধ্য পিটিয়ে খুন করেছে প্রতিপক্ষোরা। ১৯ জুন শনিবার, বিকালে এ ঘটনাটি ঘটে।
নিহত স্কুল শিক্ষক ঔ এলাকার মৃত আব্দুল হক মোল্যার ছেলে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ঘটনার দিন বিকেল পাঁচটার দিকে আসরের নামাজ পড়ার জন্য মসজিদে যায় ঔ স্কুল শিক্ষক। টিক একই সময়ে মসজিদে প্রবেশ করেন ওই গ্রামের মৃত ইসরাফিল মোল্লার ছেলে রবিউল মোল্লা এবং মৃত মুন্নাফ মোল্লার ছেলে বাঁশি মোল্লা। এ সময় নামাজে দাঁড়ানোর মুহূর্তে পাখি মাস্টারকে পিছন থেকে জাপটে ধরে মসজিদের ভিতরে বেধড়ক মারধোর কুপিয়ে জখম করে।
পরে তার চিৎকার শুনে মসজিদের অন্য মুসল্লিরা এগিয়ে আসলে ঘাতক রবিউল মোল্লা ও বাসি মোল্লা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় লোক জন তাকে উদ্ধার করে মহম্মপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ নিয়ে গেলে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে রেফার্ড করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। সেখানে নিয়ে যাওয়ার কিছু সময় পরে চিকিৎসারত অবস্থায় ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রাত ১১ টার দিকে তার মৃত্যু হয়। মৃত্যুর বিষয়টি নিহতের পরিবার নিশ্চিত করছেন।
নিতহ আলাউদ্দিন ওরফে (পাখি মাস্টার) পলাশবাড়িয়া উত্তর-পূর্ব পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।
এ বিষয়ে মহম্মপুর থানার তদন্ত অফিসার মামুন হোসেন বিশ্বাস জানান, ঘটনাটি তারা জানতে পেরে পুলিশ পাঠিয়েছে। এলাকার পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক আছে। গ্রামে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
কি কারনে এমন ঘটনা ঘটেছে জানতে চাওয়া হলে তিনি জানান, একটি পুকুরের পাড় বাধা (চালা ) নিয়ে কিছু দিন আগে রবিউরের সাথে বিরোধ বাধে। এরই সূত্র ধরে এমনটি হতে পারে বলে প্রাথমিক ভাবে ধরনা করা হচ্ছে।
এ ঘটনার বিষয়ে পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিত মামলা দায়ের হবে বলে জানান তিনি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কুপিয়ে হত্যা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ