Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৩ আগস্ট ২০২১, ১৯ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৩ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

হকির জটিলতা নিরসনে আস্থাহীন ক্লাবগুলো

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ জুন, ২০২১, ৬:৪৯ পিএম | আপডেট : ২:২৭ এএম, ২১ জুন, ২০২১

ক্যাসিনোকান্ডের পর দেশছাড়া বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের (বাহফে) নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক একেএম মুমিনুল হক সাঈদ। ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব নিয়ে ফেডারেশনের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন প্রথম যুগ্ম সম্পাদক চট্টগ্রামের মোহাম্মদ ইউসুফ। কিন্তু তাতেও যেন গতি ফিরছে না দেশের হকিতে। অলসতায় মওলানা ভাসনী হকি স্টেডিয়ামের নীল টার্ফ যেন আরও নীল। দীর্ঘ তিনবছর ধরেই নেই ঘরোয়া সর্বোচ্চ আসর প্রিমিয়ার লিগের খেলা। হকির জটিলতা নিরসনে কারো উপর আস্থা রাখতে পারছেন না প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলো। তারা আস্থাহীনতায় ভুগছে। রোববার যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী এবং জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের চেয়ারম্যান জাহিদ আহসান রাসেল এমপির কাছে সাত ক্লাবের (আবাহনী লিমিটেড, মোহামেডান, অ্যাজাক্স, ওয়ারী, আজাদ স্পোর্টিং, বাংলাদেশ স্পোর্টিং ও ভিক্টোরিয়া স্পোর্টিং) দেয়া এক চিঠিতে এমন আস্থাহীনতার কথা উল্লেখ করেন ক্লাব কর্মকর্তারা। আবাহনীর হকি কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ও সাবেক তারকা খেলোয়াড় মাহবুব এহসান রানা বলেন, ‘তিন বছর ধরে লিগ নেই। যদিও বর্তমান কমিটির বয়স আড়াই বছর। কোলাহলহীন হকি স্টেডিয়ামের টার্ফ দেখে চোখের পানি ধরে রাখতে পারিনা আমি। ফেডারেশনে কেউ যান না। ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক (মোহাম্মদ ইউসুফ) তো হকির লোক নন। তিনি মাসের বেশিরভাগ সময় চট্ট্রগ্রামেই থাকেন। এভাবে হকি চলতে পারে না।’ তিনি যোগ করেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইতিমধ্যে এক কোটি টাকা দিয়েছেন প্রিমিয়ার লিগের জন্য। সভাপতিও পরিবর্তন হয়েছেন। তারপরও খেলা নেই। তাই বর্তমান কমিটি নিয়ে আস্থাহীনতায় ভুগছি। এমতাবস্থায় হকির অচলাবস্থা দূর করতে প্রতিমন্ত্রীর দ্বারস্ত হয়েছি। হকি খেলা টার্ফে গড়ানোর স্বার্থে আমরা ফেডারেশনের কমিটি পুনর্গঠনেরও আবেদন জানিয়েছি প্রতিমন্ত্রীর কাছে।’ সাত ক্লাবের বাইরে পুলিশ হকি ক্লাবও এমন আবেদনের সঙ্গে রয়েছে বলে জানান রানা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন
আরও পড়ুন