Inqilab Logo

সোমবার, ০২ আগস্ট ২০২১, ১৮ শ্রাবণ ১৪২৮, ২২ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

শিবচরে আহত শ্রমিক লীগ সভাপতি আর নেই

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ জুন, ২০২১, ১২:০০ পিএম

ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে আহত আবু বকর ফকির (৪২) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০টায় ঢাকার আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

নিহত আবু বকর ফকির মাদারীপুরের শিবচর উপজেলার মাদবরেরচর ইউনিয়নের ডাইয়ারচর গ্রামের খালেক ফকিরের ছেলে। তিনি মাদবরেরচর ইউনিয়ন শ্রমিক লীগের সভাপতি ছিলেন।

এছাড়াও তিনি নির্বাচনে সদস্য পদে বিজয়ী আজিজুল সরদারের সমর্থক ছিলেন বলে জানা গেছে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ জানায়, মাদবরেরচর ইউপি নির্বাচনের আগের দিন গত রবিবার রাতে ওই ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য পদ প্রার্থী ইউসুফ সরদারের সমর্থকেরা সাড়ে সতের রশি এলাকায় প্রচারে যান।

তখন সেখানে প্রতিপক্ষ সদস্য প্রার্থী আজিজুল সরদারের লোকজন ইউসুফ সরদারের সমর্থকদের বাধা দেন।

এ সময় দুপক্ষের মধ্যে কথা-কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে ইউসুফ সরদারের সমর্থকরা আবু বকরকে ছুরিকাঘাত করলে তিনি গুরুতর আহত হন।

পরে স্থানীয়রা আবু বকরকে উদ্ধার করে প্রথমে ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে ঢাকার আজগর আলী হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

সেখানেই তিনি মঙ্গলবার রাতে মারা যান। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

শিবচর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নিহতের আত্মীয় আসিফ হোসেন মাতবর জানান, যে ঘটনা ঘটেছে এটা আমরা আসা করি নাই। এ ব্যাপারে পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ইউসুফ সরদারের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাদের কাউকে পাওয়া যায়নি।

শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিরাজ হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার জন্য অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নিহত


আরও
আরও পড়ুন