Inqilab Logo

বুধবার, ১৭ আগস্ট ২০২২, ০২ ভাদ্র ১৪২৯, ১৮ মুহাররম ১৪৪৪
শিরোনাম

সউদি আরবে শীর্ষস্থানীয় জেনারেলের মৃত্যুদণ্ড

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ জুন, ২০২১, ১১:৩৭ এএম

রাজপরিবারের বিরুদ্ধে কথা বলায় কিছুদিন আগে এক কিশোরের ফাঁসি কার্যকর সউদি আরব। এবার একই অপরাধে শীর্ষস্থানীয় সেনা কমান্ডার জেনারেল ফাহাদ বিন তুর্কি আব্দুল আজিজের বিরুদ্ধে মৃত্যুদণ্ডাদেশ জারি করা হয়েছে।

ইয়েমেনে চলমান আগ্রাসনে নেতৃত্বদানকারীদের মধ্যে জেনারেলদের অন্যতম ছিলেন ফাহাদ। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত এই জেনারেলের স্বজনদের বরাতে দিয়ে পার্সিয়ান গালফ স্টাডিজ সেন্টার জানিয়েছে, সউদি আরবের বাদশাহ সালমান, যুবরাজ মুহাম্মাদ বিন সালমান ও প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে ক্ষমতাচ্যুত করার ষড়যন্ত্রের দায়ে মার্শাল কোর্টে তার বিচার করা হয়েছে। বিচারে তার বিরুদ্ধে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়েছে।

এর আগে গত সেপ্টেম্বরে জেনারেল ফাহাদ বিন তুর্কি আব্দুল আজিজকে তার ছেলেসহ গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি ১৯৮৩ সালে সউদি সেনাবাহিনীতে যোগ দেন।

এরপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রিটেনে বিশেষ সামরিক প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন এবং বহিষ্কার ও গ্রেপ্তারের আগে গত বছর জেনারেল পদে উন্নীত হন।

এই জেনারেলের ছেলেদের বিরুদ্ধেও ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ ছিল। রাজধানী রিয়াদের অন্তত ১০০টি আবাসন প্রকল্প পরিচালনা করছিল তারা। ব্যাপক দুর্নীতির কারণে ২০১৪ সালে তার ছেলেদের গ্রেপ্তার করা হয়। দণ্ডপ্রাপ্ত এই কমান্ডার বর্তমান বাদশাহ সালমানের ভাই তুর্কি বিন আব্দুল আজিজের ছেলে। -মিডল ইস্ট মনিটর



 

Show all comments
  • Monjur Rashed ২৯ জুন, ২০২১, ১২:০১ পিএম says : 0
    Saudi dictatorship is so similar to Omayyad regime.
    Total Reply(0) Reply
  • Md. Akbar Hossain ২৯ জুন, ২০২১, ১:৩৬ পিএম says : 0
    রাজপরিবারের বিরুদ্ধে কথা বললেই কি তাকে মৃত্যুদন্ড দিতে হবে ?
    Total Reply(0) Reply
  • ডালিম ২৯ জুন, ২০২১, ১:৫৩ পিএম says : 0
    সউদি আরবে রাজতন্ত্র শেষ হওয়া দরকার
    Total Reply(0) Reply
  • হেদায়েতুর রহমান ২৯ জুন, ২০২১, ১:৫৫ পিএম says : 1
    আমার মতে কাজটি একদমই ঠিক হয় নি
    Total Reply(0) Reply
  • তাজউদ্দীন আহমদ ২৯ জুন, ২০২১, ১:৫৬ পিএম says : 1
    তাকে অন্য শাস্তি দেয়া যেতো। যেমন আজীবন কারাদন্ড বা বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড ......
    Total Reply(0) Reply
  • Jamal Abdur Rahman ২৯ জুন, ২০২১, ২:৩৮ পিএম says : 0
    তিন টা কারণে একজন মুসলমান কে রাষ্ট্র চাইলে হত্যা করার হুকুম আছে, (১)যে ব্যক্তি অন্যায় ভাবে কাউকে হত্যা করল,তাকে কিসাসের মাধ্যমে হত্যার হুকুম ও কার্যকর করবে রাষ্ট্র। (২)মুসলিম দেশ তথা মুসলিম শাসকের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করল,(রাষ্ট্রদ্রোহিতা) (৩)বিবাহিত অবস্থায় জেনাকারী।
    Total Reply(1) Reply
    • ২৯ জুন, ২০২১, ৫:৪৪ পিএম says : 0
  • Md. Altaf Hossain ২৯ জুন, ২০২১, ৮:০৩ পিএম says : 0
    সম্পুর্ন অন্যয় ভাবে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়েছে। ইসলামে রাজতন্ত্র নাই। তারা জোর জবর দস্তি ভাবে ক্ষমতায় থাকার জন্য যা ইচ্ছা তাই করতাছে। যারা সরকারের বিরুদ্বে কথা বলতেছে তাদের কে মৃতুদন্ড দিতেছে। ,মুসলিম বিশ্ব এর বিরুদ্বে প্রতিবাদ করা উচিত।
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ+দুলাল+মিয়া ৩০ জুন, ২০২১, ৪:৪০ পিএম says : 0
    রাজ বন্দি করে রাখা উচিত।
    Total Reply(0) Reply
  • al amin ৩ জুলাই, ২০২১, ১০:৪১ এএম says : 0
    Pardon him prince Salman.
    Total Reply(0) Reply
  • Harunur Rashid ৪ জুলাই, ২০২১, ৪:২০ এএম says : 0
    Partner in crime, outcome expected.
    Total Reply(0) Reply
  • Md.younu ৫ জুলাই, ২০২১, ২:০৮ পিএম says : 0
    কথায় কথায় মৃত‍্যুদন্ড। সৌদি রাজতন্ত্রের পতন হোক।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সউদি আরব

২৮ এপ্রিল, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ