Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ০৬ জুন ২০২০, ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ১৩ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

প্রধানমন্ত্রীর গণসংবর্ধনা সফল করতে আওয়ামী লীগের ব্যাপক প্রস্তুতি

গণসংবর্ধনায় নেতাকর্মীদের জন্য মহানগর আ’লীগের রুট নির্ধারণ

প্রকাশের সময় : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : জাতিসংঘ অধিবেশন শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেশে ফেরার মুহূর্তে তাকে ব্যাপক গণসংবর্ধনা সফল করার লক্ষে ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে আওয়ামী লীগ।
কানাডায় ‘ফিফথ রিপ্লেনিশমেন্ট কনফারেন্স অব দ্য গ্লোবাল ফান্ড (জিএফ)’ ও যুক্তরাষ্ট্রে জাতিসংঘ সাধারণ অধিবেশনে যোগদান শেষে আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর বিকালে দেশে ফিরবেন প্রধানমন্ত্রী। সেদিন বিমানবন্দর থেকে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন গণভবন পর্যন্ত ফুল ছিটিয়ে তাকে গণসংবর্ধনা দেয়া হবে।
প্রধানমন্ত্রীকে সংবর্ধনার প্রস্তুতি উপলক্ষে আওয়ামী লীগ, ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, শ্রমিক লীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, যুব মহিলা লীগসহ দলের সকল সহযোগী ও অঙ্গসংগঠন ইতোমধ্যে বর্ধিত ও যৌথসভা করেছে।
এদিকে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট থানা, ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনের নেতৃবৃন্দকে নির্দিষ্ট স্থানে অবস্থান করতে বলা হয়েছে।
দেশে ফেরার পথে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে গণভবন পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে দেয়া গণসংবর্ধনায় সংশ্লিষ্ট থানা, ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণের অবস্থান নির্ধারণ করেছে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ। আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর বিকাল ৪টার মধ্যে নির্ধারিত রুট ও স্থানে যার যার নেতা-কর্মীদের নিয়ে অবস্থান গ্রহণ করবেন মহানগর নেতা ও স্থানীয় সংসদ সদস্যগণ। গতকাল শনিবার ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়।
এতে বলা হয়, বিমান বন্দর থেকে খিলক্ষেত পর্যন্ত অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুনের নেতৃত্বে তুরাগ, উত্তরা-পূর্ব, উল্টরা-পশ্চিম, বিমানবন্দর, খিলক্ষেত, উত্তরখান ও দক্ষিণখান থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ থাকবে।
খিলক্ষেত থেকে কুড়িল ফ্লাইওভার পর্যন্ত থাকবে কামাল আহমেদ মজুমদার ও এ কে এম রহমতউল্লাহ এমপির নেতৃত্বে রামপুরা, বাড্ডা, ভাটারা, কাফরুল, ক্যান্টনমেন্ট, ভাষানটেক, রূপনগর থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ।
কুড়িল ফ্লাইওভার থেকে হোটেল রেডিসন পর্যন্ত থাকবে আসলামুল হক আসলাম ও ইলিয়াছ উদ্দিন মোল্লা এমপির নেতৃত্বে মিরপুর, শাহআলী, দারুস সালাম, পল্লবী থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ও সর্বস্তরের জনগণ।
হোটেল রেডিসন থেকে চেয়ারম্যান বাড়ী, মহাখালী ফ্লাইওভার এলাকায় থাকবে বনানী, গুলশান থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ।
মহাখালী ফ্লাইওভার থেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় পর্যন্ত থাকবে জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আসাদুজ্জামান খান কামাল এমপির নেতৃত্বে তেজগাঁও, তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল, শেরেবাংলা নগর, মোহাম্মদপুর, আদাবর থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ও সর্বস্তরের জনগণ।
ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক মো. শাহে আলম মুরাদ স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, ওই দিন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সামনে কেন্দ্রীয় ১৪ দল, ঢাকা মহানগর ১৪ দল, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ, চিকিৎসক ও আইনজীবীরা অবস্থান নেবেন। সড়ক পরিবহন অফিস হতে র‌্যাংগ্স ভবন ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি পর্যন্ত সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন অবস্থান নেবে।
এরপর র‌্যাংগ্স ভবন হতে নভো থিয়েটার পর্যন্ত জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশিদ অবস্থান নেবেন সূত্রাপুর, কোতোয়ালী, বংশাল, গেন্ডারিয়া, ওয়ারী থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ নিয়ে।
নভো থিয়েটার হতে সামরিক জাদুঘর এলাকায় সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমান মোল্লা ও জাপা এমপি সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা ডেমরা, যাত্রাবাড়ী, শ্যামপুর, কদমতলী থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ নিয়ে অবস্থান নেবেন।
সামরিক জাদুঘর হতে সংসদ ভবন মোড় পর্যন্ত সংসদ সদস্য রাশেদ খান মেনন ও সাবের হোসেন চৌধুরী রমনা, শাহ্বাগ, মতিঝিল, শাহজাহানপুর, পল্টন, খিলগাঁও, সবুজবাগ, মুগদা থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ নিয়ে অবস্থান গ্রহণ করবেন।
সংসদ ভবন মোড় হতে গণভবনের দিকে এ্যাড. কামরুল ইসলাম ও হাজী সেলিম এমপি লালবাগ, চকবাজার, কামরাঙ্গীরচর থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ নিয়ে অবস্থান নেবেন।
গণভবনের সামনে ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নুর তাপস এমপি ধানমন্ডি, নিউ মার্কেট, কলাবাগান ও হাজারীবাগ থানা আওয়ামী লীগ, সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, অঙ্গ, সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ নিয়ে অবস্থান নেবেন।
যুক্তরাষ্ট্রে জাতিসংঘের ৭১তম সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে ১২ দিনের সফরে গত ১৪ সেপ্টেম্বর ঢাকা ছাড়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। অধিবেশন থেকে তার ২৬ সেপ্টেম্বর দেশে ফেরার কথা থাকলেও পরবর্তীতে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটনে তিনি কয়েকদিন অবস্থান শেষে আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরবেন বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রধানমন্ত্রীর গণসংবর্ধনা সফল করতে আওয়ামী লীগের ব্যাপক প্রস্তুতি
আরও পড়ুন