Inqilab Logo

শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৮ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মোদি-মমতার পর এবার ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীকে আম উপহার দিলেন প্রধানমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৫ জুলাই, ২০২১, ৪:০২ পিএম

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের জন্য বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শুভেচ্ছা উপহার হিসেবে ৩০০শ’ কেজি হাড়িভাঙ্গা আম পৌঁছাল ত্রিপুরায়। আজ সোমবার (৫ জুলাই) দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে বাংলাদেশি একটি পিকআপ ভ্যানে করে উপহারের আম আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতীয় কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হয়।
এর আগে রোববার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্য দুই হাজার ৬০০ কেজি আম বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে ভারতে পাঠানো হয়েছে। আজ ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের জন্য রংপুরের বিখ্যাত সুস্বাদু ৩০০ কেজি হাড়িভাঙা আম উপহার হিসেবে যাচ্ছে।
এসময় দুই দেশের (আখাউড়া-আগরতলা) নোম্যান্সল্যান্ডে প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা উপহারের আম গ্রহণ করেন ত্রিপুরাস্থ বাংলাদেশ সহকারী হাইকমিশনার জোবায়েদ হোসেন এবং আগরতলা ইন্ট্রিগ্রেটেট চেকপোস্টের ব্যবস্থাপক দেবাশীষ নন্দী।
অন্যান্যদের মধ্যে বাংলাদেশ সহকারী হাইকমিশনের প্রথম সচিব মো. রেজাউল হক চৌধুরী, আগরতলা কাস্টমস সুপারিন্টেন্ডেন্ট জয়দেব মুখার্জি, আখাউড়া স্থলবন্দরের সহকারি পরিচালক (ট্রাফিক) মোস্তাফিজুর রহমান, আখাউড়া কাষ্টমস সুপারিন্টেন্ডেন্ট মোহাম্মদ আলী, ইন্সপেক্টর ফারুক হোসেন, আখাউড়া ইমিগ্রেশন ইনচার্জ আবদুল হামিদ, স্থলবন্দরের বিজিবি কমান্ডার আব্দুর রহমানসহ দুই দেশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
ত্রিপুরা ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্টের ব্যবস্থাপক দেবাশীষ নন্দি বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে আমাদের আত্মিক সম্পর্ক। এছাড়া দু'দেশের সম্পর্ক চমৎকার বিদ্যমান রয়েছে। ত্রিপুরা এবং বাংলাদেশের মানুষ আমরা একাকার, কেবল মাঝখানে কাঁটাতারের বেড়া। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এই উপহারের মধ্য দিয়ে আমাদের ভ্রাতৃত্বপূর্ণ সম্পর্কের প্রকাশ হলো। আমি ত্রিপুরাবাসীর পক্ষ থেকে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত-বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন