Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮, ০৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

প্রথম স্মার্টকার্ড পাচ্ছেন রাজধানীর উত্তরা রমনা ও বিলুপ্ত ছিটমহলবাসী

প্রকাশের সময় : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : প্রথমে স্মার্টকার্ড পাচ্ছেন রাজধানীর উত্তরা ও রমনা এবং কুড়িগ্রামের বিলুপ্ত ছিটমহলবাসীরা। ঢাকা সিটি করপোরেশনে উত্তরা ও রমনা এলাকার চারটি ওয়ার্ডে স্মার্ট জাতীয় পরিচয়পত্র বিতরণ শুরু হচ্ছে। আগামী ৩ অক্টোবর এই এলাকার ভোটারদের কাছ থেকে লেমিনেটেড জাতীয় পরিচয়পত্রটি নেওয়ার পর ১০ আঙ্গুলের ছাপ ও চোখের আইরিশের প্রতিচ্ছবি নিয়ে স্মার্টকার্ড দেওয়া হবে। উত্তরার ১ নম্বর ওয়ার্ডে এবং রমনার ১৯, ২০ ও ২১ নম্বর ওয়ার্ডে তিন সপ্তাহব্যাপী পরীক্ষামূলকভাবে স্মার্টকার্ড বিতরণ চলবে। ওই চার ওয়ার্ডে অভিজ্ঞতা নিয়ে ঢাকায় পুরোদমে স্মার্ট কার্ড বিতরণ শুরু হবে বলে জানা গেছে। পাশাপাশি ৩ অক্টোবর কুড়িগ্রামে বিলুপ্ত ছিটমহলেও স্মার্টকার্ড বিতরণ শুরু হবে।
জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সুলতানুজ্জামান মো. সালেহ উদ্দিন বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঢাকায় এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে স্মার্টকার্ড বিতরণ উদ্বোধন করবেন। এরপরই ঢাকা ও কুড়িগ্রামে বিতরণ শুরু হবে।
উত্তরা থানা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহজালাল জানান, পরীক্ষামূলকভাবে উত্তরার ১ নম্বর ওয়ার্ডের ৬৩ হাজারেরও বেশি ভোটারের কাছে স্মার্ডকার্ড বিতরণ শুরু হবে। ৩ অক্টোবর থেকে ২২ অক্টোবর পর্যন্ত উত্তরা হাই স্কুল ও কলেজে বিতরণকাজ চলবে। রমনা থানা নির্বাচন কর্মকর্তা মাহবুবা মমতা হেনা বলেন, থানার ১৯, ২০ ও ২১ নম্বর ওয়ার্ডে পরীক্ষামূলক কার্ড বিতরণ করা হবে। এ তিন ওয়ার্ডে অর্ধলক্ষাধিক ভোটার রয়েছে। এখানে ভিআইপিদের বসবাস বেশি, ভাসমান ভোটার কম। সেক্ষেত্রে বিতরণ কাজে কী ধরনের চ্যালেঞ্জ রয়েছে, তাও উঠে আসবে পাইলটিংয়ে।
এ কর্মকর্তা জানান, ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের ভোটাররা সিদ্ধেশ্বরী গার্লস হাই স্কুল ও কলেজ, ২০ ওয়ার্ডে সেগুন বাগিচা হাইস্কুল ও ২১ নম্বর ওয়ার্ডে উদয়ন স্কুলে ৩ অক্টোবর থেকে ২৬ অক্টোবর পর্যন্ত ভোটাররা এসে স্মার্টকার্ড নিতে পারবেন। ইসি কর্মকর্তারা জানান, ইতোমধ্যে ঢাকার দুটি থানার জন্য ৫৫ জন অপারেটর নিয়োগ দেয়া হয়েছে। উত্তরায় ৩০ জন এবং রমনার জন্য ২৫ জন অপারেটর কাজ করবে।
রাজধানীর বাইরে কুড়িগ্রামে
রাজধানীতে পাইলটিং কার্যক্রম শুরুর পাশাপাশি ৩ অক্টোবর কুড়িগ্রামেও বিতরণ শুরু হবে। এখানকার বিলুপ্ত ছিটমহল দাশিয়ারছড়ায় প্রধান নির্বাচন কমিশনার বিতরণ কাজের উদ্বোধন করবেন। এনআইডি উিইং মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার সুলতানুজ্জামান জানান, কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ি উপজেলায় ভোটারদের স্মার্টকার্ড দেয়া হবে। এক্ষেত্রে এখানকার তিনটি ইউনিয়নের বিলুপ্ত ছিটমহলবাসীও স্মার্টকার্ড পাবেন। ঢাকা ও কুড়িগ্রামের পর পর্যায়ক্রমে সারাদেশে বিতরণে যাবেন তারা। আগামী বছরের ডিসেম্বরের মধ্যে এ কার্যক্রম শেষ করার লক্ষ্যট রয়েছে ইসির।
ইসি সচিব মো. সিরাজুল ইসলাম ২ অক্টোবর উদ্ভোধন সম্পর্কে গতকাল সোমবার সাংবাদিকদের জানান, ২ অক্টোবর স্মার্টকার্ড বিতরণ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের স্মার্টকার্ডটি প্রধানমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর করবেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ। এরপরই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্মার্টকার্ড তার হাতে তুলে দেবেন দেবেন সিইসি। প্রধানমন্ত্রী জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়দের স্মার্টকার্ড হস্তান্তর করবেন। রাষ্ট্রপতির স্মার্টকার্ডটি পরে বঙ্গভবনে সিইসি ও অন্য কমিশনাররা তার সঙ্গে সাক্ষাত করে হস্তান্তর করবেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ