Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৭ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।

অমর একুশে বইমেলা : তরুণ-তরুণীর সেলফির হিড়িক

প্রকাশের সময় : ১০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইখতিয়ার উদ্দিন সাগর : বইমেলায় এসে সেলফি না তুললে কি হয়? মেলার উৎসবমুখর পরিবেশের সঙ্গে নিজেদের একাত্ম করার জন্য সেলফি তুললাম। বইমেলায় এসে সেলফির বিষয়ে এমন মন্তব্য করলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রনি তালুকদার নামে এক তরুণ। বাংলা একাডেমিতে বন্ধুদের ফ্রেমে বন্দি করছিলেন তিনি। তাদের মতো এমন অনেককেই বইমেলায় সেলফি তুলতে দেখা গেল। হাতে নতুন বই না থাকলেও ক্যামেরায় বন্দি ঠিকই হচ্ছে। এদের দলে তরুণদের সংখ্যাই বেশি।
সেলফি তোলার সময় কথা হয় মিরপুর থেকে আসা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী নাইম হোসেনের সাথে। তিনি বলেন, বইমেলায় প্রতিদিন আসার চেষ্টা করি। বই তো আর প্রতিদিন কেনা হয় না। মেলায় এসে বন্ধুরা মিলে সময় কাঠাতে অনেক ভালো লাগে।
এদিকে দিন দিন মেলায় বাড়ছে ক্রেতা-দর্শনার্থী। আর এই ভিড়ের আসরে তরুণদের সংখ্যাটাই বেশি। তবে অন্যান্য বয়সী দর্শনার্থীর সংখ্যাও কিন্তু কম নয়। এবারের মেলায় ব্যতিক্রমী চিত্র হলো ছবি তোলা। মেলায় চলছে ছবি তোলার হিড়িক। মোবাইল ক্যামেরা ও ব্যক্তিগত ক্যামেরায় ছবি তোলার হিড়িক এখন মেলার নিত্যদিনের চিত্র। এই ছবি ফেসবুকে আপলোড করে বন্ধুদের সবাই জানান দিচ্ছে ‘বন্ধুরা দেখো, বইমেলায় আমাদের ছবি। তোমরাও কিন্তু মিস কোরো না। ছবি তোলা কিংবা ঘোরাঘুরির সঙ্গে কেনাকাটাও চলছে সমানতালে। প্রকাশকেরা জানান, মেলার ক্রেতাদের মধ্যে বরাবরই তরুণদের সংখ্যা বেশি। ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এখন অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ আলোচিত বিষয় অমর একুশে গ্রন্থমেলা।
মূলমঞ্চের অনুষ্ঠান : বিকাল ৪টায় গ্রন্থমেলার মূলমঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় ‘বাংলাদেশের প্রকাশনা কার্যক্রম : অতীত থেকে বর্তমান’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন আহমাদ মাযহার। আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন শিল্পী রফিকুন নবী, কবি তারিক সুজাত, লেখক রেজানুর রহমান এবং পশ্চিমবঙ্গের লেখক-গবেষক ইমানুল হক। সভাপতিত্ব করেন শিল্পী হাশেম খান।
সভাপতির বক্তব্যে শিল্পী হাশেম খান বলেন, বাংলাদেশের প্রকাশনা জগৎ ঐতিহ্যবাহী এক শিল্পক্ষেত্র। জ্ঞানান্বেষু মানুষের প্রয়োজন এবং নান্দনিক উৎকর্ষÑ উভয়ের মিলিত সারাৎসারে ঐতিহ্যের পথ বেয়ে এখন তা আধুনিক রুচির সঙ্গে মিলিত হয়েছে। তবে এই প্রকাশনা জগতকে আরো সমৃদ্ধ করতে আমাদের আরো বহু পথ পাড়ি দিতে হবে।
সন্ধ্যায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ছিল সত্যেন সেন শিল্পগোষ্ঠীর শিল্পীদের পরিবেশনা। সংগীত পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী নাদিরা বেগম, দিলরুবা খান, আজগর আলীম, মো. নূরুল ইসলাম, আবদুল কুদ্দুস এবং মনিরা ইসলাম।
আজকের অনুষ্ঠান : বিকেল ৪টায় গ্রন্থমেলার মূলমঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে ‘বাংলাদেশে শিশুসাহিত্য চর্চা : অতীত থেকে বর্তমান’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান। প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন শাহীন আখতার। আলোচনায় অংশগ্রহণ করবেন আসলাম সানী, রাশেদ রউফ এবং সুজন বড়–য়া। সভাপতিত্ব করবেন বিশিষ্ট লেখক রশীদ হায়দার। সন্ধ্যায় রয়েছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ