Inqilab Logo

শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২ আশ্বিন ১৪২৮, ০৯ সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

চাকরি বাঁচাতে কর্মস্থলে যাত্রা

চাকরি বাঁচাতে কর্মস্থলে যাত্রা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩০ জুলাই, ২০২১, ১২:০৫ এএম

চাকরি বাঁচাতে লকডাউন উপেক্ষা করে গত বুধবার রাতে নেত্রকোনা থেকে ১৩ জন যাত্রী নিয়ে একটি মাইক্রোবাস চট্টগ্রামে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে কসবা এলাকায় মাইক্রোবাসের চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মহাসড়কের পাশে থাকা একটি বৈদ্যুতিক খুঁটিতে ধাক্কা খায়। এ সময় মাইক্রোবাসটিতে থাকা ১৩ জন আহত হন। পরে আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার সময় শিশু ইভা মারা যায়। অন্যদিকে, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার চান্দিনায় বালুবোঝাই ট্রাক্টরে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় ৩ জন নিহত ও ১ ব্যক্তি আহত হয়েছেন। গাজীপুরের শ্রীপুরের ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে কভার্ডভ্যান চাপায় এক দম্পতি নিহত হয়েছেন।
ভ্রাম্যমাণ সংবাদদাতা জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার হাড়িখোলা নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার হাঁড়িখোলা গ্রামের আবদুল জলিলের ছেলে বালু শ্রমিক নুরুল ইসলাম (৪০), রংপুরের আবদুল খালেকের ছেলে শ্রমিক ফয়জার রহমান (৪০) ও কাভার্ডভ্যান চালক লিটন (৪০)। এই সময় গুরুতর অবস্থায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয় হাঁড়িখোলা গ্রামের ট্রাক্টর চালক আমির হোসেনকে।
হাইওয়ে পুলিশ ইলিয়টগঞ্জ ফাঁড়ির ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) জিয়াউল হক চৌধুরী দৈনিক ইনকিলাবকে জানান, হাঁড়িখোলা মাজার এলাকায় মহাসড়ক সংলগ্ন মার্কেটের সামনে ট্রাক্টরে বালু উঠাচ্ছিলেন শ্রমিকরা। এ সময় ঢাকাগামী একটি কাভার্ডভ্যান নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বালুবোঝাই ট্রাক্টরে ধাক্কা দিয়ে উল্টে যায়। এ সময় ঘটনাস্থলেই শ্রমিক নুরুল ইসলাম ও ফয়জার রহমান নিহত হন। হাসপাতালে নেওয়ার পথে মৃত্যু ঘটে কাভার্ডভ্যান চালকের। পরে চান্দিনা ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট এসে উদ্ধারকাজ চালায়।
স্টাফ রিপোর্টার, চাঁদপুর থেকে জানান, বৃহস্পতিবার ভোরে ঘটনাটি ঘটে চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক সড়কের চাঁদপুর সদর উপজেলার মহামায়া বাজারে। নিহত মোটরসাইকেল চালকের বাড়ি ফরিদগঞ্জ উপজেলার ধানুয়া এলাকায়, তবে তার অস্থায়ী ঠিকানা কুমিল্লার শাসনগাছা বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।
গোলাম মোস্তফা ডাবলু নামের ঘাতক ট্রাক চালকের বাড়ি যশোরে। চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ট্রাক চালককে আটকসহ ট্রাকটিকে জব্দ করেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মোটরসাইকেল চালক নিজে মোটরসাইকেল চালিয়ে চাঁদপুরের দিকে যাওয়া অবস্থায় চানখারপুল এলাকার নুরুল হক উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে পৌঁছলে বিপরীত দিক থেকে আসা হাজীগঞ্জমুখী ট্রাকটির ভিতরে মোটর সাইকেলটি ঢুকে পড়ে। এ সময় ট্রাকের নিচে দিয়ে মোটর সাইকেলেটি বেরিয়ে গেলেও ট্রাকের নিচের কোনো এক স্থানে আটকে যান মোটর সাইকেল চালক নাসির উদ্দিন। এ অবস্থায় চালক ট্রাকটি না থামিয়ে হাজীগঞ্জের দিকে চালিয়ে যেতে থাকেন।
পথিমধ্যে মিয়ার বাজারের বেশ কয়েকজন সিএনজি অটোরিকশা চালক ট্রাকের নিচে কাউকে আটকে থাকতে দেখে তাদের পরিচিত মহামায়া বাজারের কয়েকজন সিএনজি অটোরিকশা চালককে ফোন করে খবরটি দেন। এর পরেই ট্রাকটি এগিয়ে গেলে মহামায়া বাজারের মানুষজন জড়ো হয়ে আটকিয়ে ট্রাকের নিচ থেকে আটকে থাকা লোকটিকে উদ্ধার করলেও তাকে আর বাঁচাতে পারেননি। আটকে থাকাবস্থাতেই লোকটি মারা যান। এ সময় স্থানীয়রা ট্রাক চালককে আটকে রেখে পুলিশে খবর দেয়। এ বিষয়ে চাঁদপুর মডেল থানার ওসি আব্দুর রশিদ জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।
স্টাফ রিপোর্টার, মাগুরা থেকে জানান, নিহত নারী খাদিজা (২২) মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের রাহাতপুর গ্রামের প্রবাসি স্বাধীনের স্ত্রী। গতকাল দুপুরে রাহাতপুর গ্রামে নিহত খাদিজার বাড়ির সামনে এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নহাটা থেকে মটোরসাইকেল যোগে বাড়িতে ফেরার সময় রাহাতপুর সুইসগেট সংলগ্ন পশ্চিম পাশে নহাটা-রাজাপুর সড়কে মোটরসাইকেল ও ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এ সময় মোটরসাইকেল আরোহী মোছা. খাদিজা(২২)ঘটনাস্থলেই মারা যান। ঘটনার সময় খাদিজার কোলে থাকা কন্যা শিশু পাশের ধান ক্ষেতে গিয়ে আছড়ে পড়ায় অক্ষত রয়েছে। এদিকে ঘাতক ট্রাকটি নহাটা মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে আটকে রাখা হয়েছে বলে যানায় মহম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসির উদ্দিন।
শ্রীপুর (গাজীপুর) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, এ ঘটনায় নিহতরা হলেন- উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের চকপাড়া গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য আবুল হোসেন (৮৬) ও তার স্ত্রী রূপজান বিবি (৭৯)।
শ্রীপুর উপজেলার নয়নপুর বাজারে বৃদ্ধ স্বামী স্ত্রী এক সাথে রাস্তা পারাপারের সময় একটি কার্ভাডভ্যান চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান রুপজান বিবি আর আহত আবুল হোসেনকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষনা করেন। নিহত আবুল হোসেন মাওনা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য।
মাওনা হাইওয়ে থানার (ওসি) কামাল হোসেন জানান, ঘটনাস্থল থেকে নিহত রুপজানের লাশ উদ্ধারেরর পর স্বজনের আবেদনের প্রেক্ষিতে পুলিশের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের অনুমতি ক্রমে লাশ স্বজনদের কাছে হস্থান্তর করা হয়েছে। এদিকে ঘাতক কভার ভ্যানটি আটক করা সম্ভব হয়নি বলে জানিয়েছে পুলিশ।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সংবাদদাতা জানান, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় একটি যাত্রীবাহী মাইক্রোবাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বৈদ্যুতিক খুঁটির সাথে ধাক্কা লেগে ইভা আক্তার (৮) নামের এক শিশু নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোরে কুমিল্লা-সিলেট মহাসড়কে উপজেলার খাড়েরা নামক স্থানে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।
নিহত ইভা নেত্রকোনার আটপাড়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের মোবারকপুর গ্রামের ইব্রাহীম মিয়ার মেয়ে। দুর্ঘটনায় আরো অন্তত ১২ জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে পারুল (২৮), রিনা (২৭), তাহমিনা (৩২), নিহত ইভার মা ইয়াছমিন (২৮), তরিকুল (২৮), সিরাজ (৩২), রাজেশ (৩৪), ও শারমিনকে (২৬) উদ্ধার করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এছাড়া নিহত ইভার বাবা ইব্রাহীমসহ (৩২) আরও কয়েকজনকে কসবা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। তারা সকলেই নেত্রকোনা জেলার বাসিন্দা।
কসবা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলমগীর ভূঁঞা জানান, খবর পেয়ে কসবা থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। দুর্ঘটনাস্থল থেকে হতাহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মাইক্রোবাসের চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে এ দুর্ঘটনাটি ঘটিয়েছে।
বোচাগঞ্জ (দিনাজপুর) সংবাদদাতা জানান, দিনাজপুরের বোচাগঞ্জ উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় সহষপুর গ্রামের সুনীল চন্দ্র রায় (২৮) নামে একজন কনস্টেবল ট্রাকের সাথে মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে নিহত হয়েছেন।
জানা যায় সুনীল চন্দ্র রায় অসুস্থ স্ত্রীর জন্য সেতাবগঞ্জ বাজারে ঔষধ কিনে একটি মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফেরার পথে ইশানিয়া ইউনিয়নের ইসলামপুর মোড়এ মালবাহী একটি ট্রাকের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষে দুর্ঘটনায় কবলিত হয়। পরবর্তীতে তাকে বোচাগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য জরুরী বিভাগে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন।
ঈশ্বরদী (পাবনা) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, ঈশ্বরদী পাবনা সড়কের তেতুলতলা নামক স্থানে একটি ড্রাম ট্রাকের ধাক্কায় আমিজ উদ্দিন শেখ(৪৭) নামে একজন সাইকেল আরোহী ঘটনাস্থলে নিহত হয়েছে। সে ঈশ্বরদী উপজেলার দাশুড়িয়া ইউনিয়নের ডিগ্রী পাড়া গ্রামের হাকিমুদ্দিন শেখের ছেলে।
জানা গেছে, উল্লেখিত সময়ে নিহত আমিজ উদ্দিন দাশুড়িয়া বাজার থেকে সাইকেল যোগে নিজবাড়ী ডিগ্রী পাড়া অভিমুখে যাবার সময় পেছন থেকে একটি বালুভর্তি ড্রামট্রাক তাকে পেছন থেকে সজোরে ধাক্কা দেয়। এতে সে ছিটকে পড়ে মাথায় প্রচন্ড আঘাত প্রাপ্ত হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যুবরণ করেন। একই সময়ে ঘাতক ট্রাকটি অন্য একটি ট্রাককে সজোরে ধাক্কা দিলে উভয় ট্রাকই ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ ব্যাপারে পাকশী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সড়ক দুর্ঘটনা

১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১
১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ