Inqilab Logo

শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ আশ্বিন ১৪২৮, ০৮ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

প্রধানমন্ত্রীর সুনাম ক্ষুন্ন করতেই সিআরবিতে হাসপাতাল

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০২১, ১২:০২ এএম

সিটি মেয়র এম রেজাউল করিম চৌধুরী বলেছেন, সরকারি প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী সিআরবি একটি সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের স্মারক, হেরিটেজ জোন। সেখানে প্রাকৃতিক সৌন্দর্যহানি করে হাসপাতাল তো নয়, ইট-পাথরের কোনো স্থাপনাই গড়ে তুলতে দেয়া হবে না। সরকার ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভাবমর্যাদা ক্ষুন্ন করতেই সিআরবিতে হাসপাতাল প্রকল্প নেয়া হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সিআরবিতে হাসপাতাল নির্মাণ প্রক্রিয়া বন্ধের দাবিতে আন্দোলনরত সংগঠন নাগরিক সমাজের নেতাদের কাছ থেকে স্মারকলিপি গ্রহণকালে মেয়র এসব কথা বলেন।
মেয়র বিষ্ময় প্রকাশ করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চট্টগ্রাম দরদী। তিনি ঐতিহ্য সচেতন ও প্রকৃতি প্রেমী। এজন্য তিনি সারা বিশে^ প্রশংসিত ও বরেণ্য হিসেবে স্বীকৃত। আমরা কিছুতেই তার এই অনন্য স্বীকৃতিকে ম্লান হতে দেবো না। আমরা জানি একটি অশুভ চক্র নানাভাবে সরকার ও প্রধানমন্ত্রীর ভাবমর্যাদা ক্ষুন্ন করতে তৎপর। সিআরবিতে হাসপাতাল নির্মাণ সেই অশুভ অপতৎপরতারই অংশ। আমরা হাসপাতাল চাই। তবে সিআবিতে কোনোভাবেই নয়। হাসপাতালের জন্য সিআরবি ছাড়া আরো অনেক বড় পরিসরের স্থান রয়েছে। চসিকেরও আছে। চাইলে আমরা হাসপাতালের জায়গা দেবো।

নাগরিক সমাজ চট্টগ্রামের সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুলের নেতৃত্বে স্মারকলিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন, চবি ভিসি প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার, ডা. একিউএম সিরাজুল ইসলাম, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, মুক্তিযুদ্ধের বিজয় মেলা পরিষদের মহাসচিব মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ ইউনুছ, সিইউজের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আসিফ সিরাজ প্রমুখ।
এদিকে চট্টগ্রামের সবচেয়ে বড় এবং একমাত্র নৈসর্গিক মুক্তাঙ্গণ হেরিটেজ জোন সিআরবি সুরক্ষায় নানা আন্দোলন কর্মসূচি অব্যাহত আছে। গতকাল গণঅধিকার ফোরাম ও পরিবেশ সুরক্ষা আন্দোলনের (বাপসা) উদ্যোগে সিআরবিতে বাণিজ্যিক হাসপাতাল নির্মাণের সিদ্ধান্ত বাতিল, মহান স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের কবর ও স্মৃতি স্মারক রক্ষা এবং সিআরবির নৈসর্গিক পরিবেশ অক্ষুন্ন রাখার দাবিতে প্রতিবাদী অবস্থান ও মানববন্ধন সিআরবি সাত রাস্তার মোড়ে অনুষ্ঠিত হয়। ফোরামের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলমের সভাপতিত্বে অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তাগণ বলেন, চট্টগ্রামের ফুসফুস সিআরবির প্রাকৃতিক পরিবেশকে ধ্বংস করার যে অপচেষ্টা চলছে তা প্রতিহত করতে হবে। ঐতিহ্য রক্ষার আন্দোলনে, পরিবেশবিদসহ দলমত নির্বিশেষে সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।

চট্টগ্রামে রেলওয়ের জায়গার অভাব নেই। অথচ তারা সিআরবিতে হাসপাতাল করছে। আমরা হাসপাতাল চাই, তবে তা সিআরবিতে নয়। যদি একান্তই হাসপাতাল করতে হয় তবে বর্তমান সেখানে যে বক্ষব্যাধি হাসপাতাল আছে সেটির আধুনিকায়ন করে কোভিড হাসপাতাল করুন। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন। এতে গণঅধিকার ফোরামের মহাসচিব এম এ হাশেম রাজু, অ্যাড. মফিজুল হক ভঁ‚ইয়া, এস এম কামরুল ইসলাম, আবু মোহাম্মদ হোসেন চৌধুরী, মোহাম্মদ জাকির হোসেন, ক্যাব নেতা জানে আলম, এসডিজি ইয়ুথ ফোরামের সভাপতি নোমান উল্লাহ বাহার প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সিআরবিতে হাসপাতাল

৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১
১৮ আগস্ট, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ