Inqilab Logo

শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২ আশ্বিন ১৪২৮, ০৯ সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

একুশের সিরিজ তেইশে!

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০২১, ১২:০০ এএম

চলতি বছর সেপ্টেম্বর-অক্টোবরে বাংলাদেশে আসার কথা ছিল ইংল্যান্ডের। তবে আগের দিন ব্রিটিশ গণমাধ্যম ও ক্রিকেট বিষয়ক ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো জানায়, তারা সফর স্থগিত করেছে। সেদিনই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামুদ্দিন চৌধুরী জানিয়েছিলেন, আলোচনা চলছে। সেই আলোচনার ফল জানা গেল গতকাল দুপুরে। শেষ পর্যন্ত পিছিয়েই গেল সফরটি। দেড় বছর পিছিয়ে ২০২৩ সালের মার্চে বাংলাদেশে আসবে ইংলিশরা। সিরিজের ম্যাচ থাকছে আগের মতোই, তিনটি ওয়ানডে ও তিনটি টি-টোয়েন্টি। মার্চের প্রথম দুই সপ্তাহে ঢাকা ও চট্টগ্রামে হবে ম্যচগুলো।
ওয়ানডে সিরিজটি আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ সুপার লিগের অংশ হওয়ায় এটির বাধ্যবাধকতা ছিল নির্ধারিত সময়ের মধ্যে আয়োজনের। তবে টি-টোয়েন্টি সিরিজটির বাস্তবতা এখন বদলে গেল। এবার এই সিরিজটি হওয়ার কথা ছিল টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ঠিক আগে, যা হতে পারত দুই দলের জন্যই দারুণ প্রস্তুতি। সেটি পিছিয়ে এখন চলে যাচ্ছে আগামী বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেরও পরে। সিরিজের কার্যকারিতা তাই কমে গেল নিশ্চিতভাবেই।
সিরিজ পিছিয়ে যাওয়ায় ইংলিশ ক্রিকেটাররা অংশ নিতে পারবেন আইপিএলে। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের খবর, পুনরায় শুরু হতে যাওয়া আইপিএলে খেলার জন্যই ম‚লত বাংলাদেশ সফরে অনীহা ইংল্যান্ডের ক্রিকেটারদের। ইংল্যান্ডের বোর্ড যদিও গত মে মাসে বলেছিল, আইপিএল নতুন স‚চিতে হলে তারা নিজেদের ক্রিকেটারদের সেখানে খেলার অনুমতি দেবে না। তবে বিশ্বকাপ প্রস্তুতির কথা ভেবে শেষ পর্যন্ত নিজেদের অবস্থান থেকে তারা সরে আসে বলে খবর সংবাদমাধ্যমের। ক্রিকইনফো জানায়, ইংল্যান্ডের বাংলাদেশ সফর অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত হয়ে যাওয়ায় ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) জন্য ক্রিকেটারদের অনুমতি দেওয়া হবে। ভারতে কোভিডের প্রকোপে থমকে যাওয়া আইপিএলের বাকি অংশ আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। তিন ভেন্যুতে মাঠে গড়াবে ৩১টি ম্যাচ। এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও হবে সেখানেই।
ইংল্যান্ডের যেসব ক্রিকেটার আইপিএলের কোনো দলে নেই, তারা সেসময় বিশ্রামে থাকবেন। করোনা পরবর্তী ঠাসা স‚চি ও টানা সুরক্ষা বলয় থাকার ধকল সামলে ক্রিকেটারদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে তরতাজা রাখতে চায় তারা। আগামী অক্টোবর-নভেম্বরে সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ওমানে হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। আর ইংল্যান্ড সফর স্থগিত করায় নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজই হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশের প্রস্তুতির শেষ মঞ্চ। চলতি মাসের শেষদিকে পাঁচটি টি-টোয়েন্টি খেলতে বাংলাদেশে আসার কথা কিউইদের।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ক্রিকেট


আরও
আরও পড়ুন