Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

তানোর বিএনপিতে প্রাণচাঞ্চল্য

প্রকাশের সময় : ১ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

তানোর (রাজশাহী) উপজেলা সংবাদদাতা : বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটিতে ভাইস-চেয়ারম্যান পদে ব্যারিস্টার আমিনুল হককে মনোনীত করায় রাজশাহী অঞ্চলে বিএনপির রাজনীতিতে ফের প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে। দীর্ঘদিন পর রাজশাহী অঞ্চলের বিএনপির নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে বিরাজ করছে উৎসবের আমেজ, বইছে আনন্দের বন্যা। সাবেক ডাকমন্ত্রী ব্যারিস্টার আমিনুল হক দলের ভাইস-চেয়ারম্যান হওয়ায় রাজশাহী-১ (তানোর-গোদাগাড়ী) নির্বাচনী এলাকায় বিএনপির নেতা ও কর্মী-সমর্থকরা যেন প্রাণ ফিরে পেয়েছে এবং পাশাপাশি এই অঞ্চলে বিএনপির রাজনীতিতে এসেছে নাটকীয় পরিবর্তন। যে কারণে দীর্ঘদিন পর তানোর-গোদাগাড়ী বিএনপির রাজনীতিতে ফিরে এসেছে প্রাণ চাঞ্চল্য নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে দেখা গেছে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা বিরাজ করছে উৎসবের আমেজ। ব্যারিস্টার আমিনুল হক রাজনীতিতে ফিরবেন কি না?, ফিরলেও তার আগের অবস্থান ফিরে পাবেন কি না? ইত্যাদি বিষয়ে বিএনপির নেতা ও কর্মী-সমর্থকগণ যখন চরম উদ্বেগ-উৎকন্ঠায় রয়েছেন, ঠিক সেই সময়ে সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বিএনপির নির্বাহী কমিটিতে ভাইস-চেয়ারম্যান পদে আসিন হয়েছেন ব্যারিস্টার আমিনুল হক। আর এর পর পরই বিএনপির রাজনীতিতে হয়েছে নাটকীয় পরিবর্তন এই পরিবর্তন নেতাকর্মীদের নিয়ে সামনে এগিয়ে যাওয়ার। ফলে ব্যারিস্টার আমিনুল হক ও তানোর পৌর মেয়র মিজানুর রহমান মিজানকে ঘিরে বিএনপিতে ব্যাপক প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে সাংগঠনিক কর্মকাÐ হয়েছে গতিশিল বলে একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।
জানা গেছে, বিএনপির বর্ষীয়ান প্রবীণ এই রাজনৈতিক নেতা ব্যারিস্টার আমিনুল হক ১৯৯১, ১৯৯৬ ও ২০০১ সালে পর পর তিন বার রাজশাহী-১ তানোর-গোদাগাড়ী আসনে বিপুল ভোটের ব্যবধানে সংসদ সদস্য (এমপি) নির্বাচিত হয়ে মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছেন। রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট পরিবর্তন, জাতীয় সংসদ ও উপজেলা নির্বাচনের পর তানোর-গোদাগাড়ীতে বিএনপি’র তেমন কার্যক্রম ছিল না। তবে বিএনপি’র বর্ষীয়ান এই রাজনৈতিক নেতা ভাইস-চেয়ারম্যান ও মিজানুর রহমান মিজান তানোর পৌর মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পরে সেই চিত্র রাতারাতি পাল্টে গেছে। দীর্ঘদিন পর আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে তানোর-গোদাগাড়ী এলাকায় বিএনপি পুনরায় সংগঠিত হচ্ছে। তানোর-গোদাগাড়ীর সাধারণ মানুষের কাছে ব্যারিস্টার আমিনুল হকের এখানো যে আকাশচুম্বি জনপ্রিয়তা রয়েছেন তাতে তিনি নির্বাচন করলে তার বিজয়ী হওয়া সময়ের ব্যাপার বলে অভিমত রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের। মসজিদ, মন্দির, গীর্জা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন সমাজকল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠানে অপ্রত্যাশিত উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। শিক্ষাক্ষেত্রে তিনি যে অবদান রেখেছেন তা কালের সাক্ষী হিসেবে দাঁড়িয়ে আছে। তিনি বলেন, ব্যারিস্টার আমিনুল হকের সরব প্রত্যাবর্তনে রাজশাহী অঞ্চলে বিএনপির রাজনীতিতে ব্যাপক প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: তানোর বিএনপিতে প্রাণচাঞ্চল্য
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ