Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

রিমান্ড শেষে কারাগারে পরীমনি

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২১ আগস্ট, ২০২১, ৩:৫৯ পিএম

জামিন হয়নি পরীমণির। আপাতত কাশিমপুর কারাগারই ঠিকানা মাদক মামলায় গ্রেপ্তার আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমনির। শনিবার অভিনেত্রীকে আদালতে তোলা হলে শুনানি শেষে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন ঢাকা মহানগর হাকিম আশেক ইমাম। বেলা পৌনে ১২টার দিকে পরীমনিকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক গোলাম মোস্তফা তাকে মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন। শুনানি শেষে নায়িককে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয় আদালত।

এদিন সিআইডি আদালতে আবেদন করে, রিমান্ডে পরীমনি মাদক মামলা সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন। তদন্তের স্বার্থে তাকে কারাগারে রাখা খুবই জরুরি। তাকে জামিন দিলে তদন্তে ব্যাঘাত ঘটতে পারে। শুনানি শেষে আদালত সিআইডির আবেদনে সাড়া দিয়ে নায়িকাকে কারাগারে পাঠায়। এর আগে শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে একটি মাইক্রোবাসে করে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (সিএমএম) নেওয়া হয় পরীমনিকে। এরপর তাকে সেখানকার হাজতখানায় রাখা হয়।
গত ৪ আগস্ট র‌্যাবের হাতে আটক হওয়ার পর থেকে নিয়ে এ পর্যন্ত মোট পাঁচ দফায় আদালতে তোলা হলো আলোচিত এই নায়িকাকে। প্রথমবার তাকে চার দিনের রিমান্ড দিয়েছিল আদালত। দ্বিতীয় বার দুই দিন। সেই মেয়াদ শেষ হলে গত বুধবার তৃতীয় দফায় পরীমনিকে আদালতে তোলা হয়।
নায়িকার আইনজীবী তার জামিনের আবেদন করেন। অন্যদিকে, সিআইডির আবেদনের প্রেক্ষিতে পরীমনিকে আবারও রিমান্ডে চান রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী। কিন্তু সেদিন শুনানি হয়নি। ফলে বৃহস্পতিবার পরীমনিকে আবার আদালতে তোলা হয়। এদিন নায়িকার রিমান্ড নামঞ্জুর করে তাকে এক দিনের রিমান্ডে পাঠানো হয়। সেই মেয়াদ শেষ হওয়ায় পঞ্চম বারের মতো শনিবার আবারও আদালতে তোলা হয় মাদক মামলায় কারাবন্দি পরীমনিকে। কিন্তু আজও তিনি জামিন পেলেন না। গত ৪ আগস্ট সন্ধ্যায় পরীমনিকে তার বনানীর বাসা থেকে বিপুল মাদকসহ আটক করে র‌্যাব। ওই দিনই নায়িকার বিরুদ্ধে বনানী থানায় মাদক আইনে মামলা করে বাহিনীটি। সেই মামলায় গত ১৩ আগস্ট থেকে তিনি আদালতের নির্দেশে কাশিমপুর কারাগারে বন্দি। থাকতে হবে আরও কিছুদিন।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পরীমনি


আরও
আরও পড়ুন