Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ১০ কার্তিক ১৪২৮, ১৮ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

সকল জনগণকে করোনার টিকার আওতায় আনুন- ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৪ আগস্ট, ২০২১, ৮:৩১ পিএম

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেছেন, করোনার ভ্যাকসিনে ধীরগতি জনমনে অসন্তোষ বিরাজ করছে। মহামারি করোনার দীর্ঘ সময় অতিবাহিত হলেও সরকার করোনা নিয়ে তেলেসমাতি করছে। ঘোষণা ছাড়াই দেশের বিভিন্ন এলাকায় করোনা ভাইরাসের টিকার প্রথম ডোজ দেয়া বন্ধ করে দিয়েছে সরকার। বিভিন্ন এলাকায় মানুষ দীর্ঘ লাইন ধরেও প্রথম ডোজ দিতে না পেরে অসন্তোষ প্রকাশ করছে। টিকার প্রথম ডোজের জন্য নিবন্ধন করা শত শত নারী-পুরুষ এসএমএস পেয়ে নগরীর একমাত্র টিকাদানকেন্দ্র, মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে এসে না পেয়ে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে। তিনি বলেন, দ্রুত সময়ের মধ্যে দেশের সকল জনগণকে টিকার আওতায় নিয়ে আসতে যা যা করা প্রয়োজন তাই করতে হবে।

তিনি বলেন, যেখানে সরকারি হিসাব মতে ২৬ কোটি ডোজ টিকা প্রয়োজন, সেখানে তারা সোয়া কোটি ডোজ টিকা নিয়ে গণটিকা ঘোষণা দিয়ে জাতিকে বিভ্রান্ত করছে।

আজ মঙ্গলবার বিকেলে দেশের চলমান পরিস্থিতি নিয়ে এক পর্যালোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। পুরানা পল্টনস্থ দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত বৈঠকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অংশ নেন, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, আলহাজ আমিনুল ইসলাম ও ইঞ্জিনিয়ার আশরাফুল আলম, সহকারি মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদ, মাওলানা মুহাম্মদ ইমতিয়াজ আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক কেএম আতিকুর রহমান, প্রচার ও দাওয়াহ বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা খলিলুর রহমান, দফতর সম্পাদক মাওলানা লোকমান হোসাইন জাফরী, সহ-প্রশিক্ষণ সম্পাদক মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাকী।

সভায় কওমী মাদরাসাসহ দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দ্রুত সময়ের মধ্যে খুলে দেয়ার দাবি জানানো হয়।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ