Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১২ কার্তিক ১৪২৮, ২০ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

ভারতীয় কনস্যুলেটের বাইরে বিক্ষোভ ব্রিটিশ কাশ্মীরিদের

গিলানিকে জোরপূর্বক দাফন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১২:০২ এএম

অধিকৃত জম্মু ও কাশ্মীরে (আইআইওজেকে) সর্বদলীয় হুরিয়াত কনফারেন্সের (এপিএইচসি) প্রাক্তন চেয়ারম্যান এবং বিশিষ্ট হুররিয়াত নেতা সৈয়দ আলী গিলানিক দখলদার বাহিনীর জোরপূর্বক দাফনের বিরুদ্ধে গতকাল লন্ডনে প্রতিবাদ জানিয়েছে শত শত ব্রিটিশ কাশ্মীরি। তাহরীকে কাশ্মীর (টিকে)-এর আহবানে বর্মিংহাম এবং যুক্তরাজ্যের অন্যান্য শহরে ভারতীয় কনস্যুলেটের বাইরে বিক্ষোভকারীরা জড়ো হন। বিক্ষোভকারীরা ভারতীয় সেনাদের মৃত কাশ্মীরি নেতার লাশের সাথে অমানবিক আচরণের সমালোচনা করার সময় কাশ্মীরের জন্য ভারতবিরোধী এবং স্বাধীনতাপন্থী স্লোগান দেয়। বিক্ষোভকারীরা গিলানির ছবি বহন করছিল এবং স্লোগান দিচ্ছিল, ‘আমরা সবাই গিলানি এবং আমরা তার মিশন চালিয়ে যাব’। উপস্থিত ব্যক্তিদের উদ্দেশে টিকে ইউকে-এর প্রেসিডেন্ট রাজা ফাহিম কায়ানি বলেন, মৃত নেতা কাশ্মীরের স্বাধীনতা সংগ্রামের মুখ, যিনি কয়েক দশক ধরে অধিকৃত জম্মু ও কাশ্মীরের উপর ভারতের আধিপত্যবাদী শাসনকে চ্যালেঞ্জ করেছিলেন। কায়ানি আরো বলেন, ‘গিলানি ১৯৬০-এর দশকের গোড়ার দিক থেকে ভারতের বিরুদ্ধে লড়াই করে আসছিলেন এবং ১৯৬২ সালের পর প্রায় ১০ বছর কারাগারে ছিলেন এবং পরে প্রায়ই তার বাড়িতে গৃহবন্দি ছিলেন’। নেলসন এবং ডিউসবারিসহ যুক্তরাজ্যের অন্যান্য অংশেও ভারতবিরোধী বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গায়েবানা নামাজ অনুষ্ঠিত হয় লুটন, ওয়ালসাল, লিডস এবং ইউরোপের বিভিন্ন দেশে। এক্সপ্রেস ট্রিবিউন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিক্ষোভ ব্রিটিশ কাশ্মীরিদের
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ