Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১২ কার্তিক ১৪২৮, ২০ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

ভোজ্যতেলের সিন্ডিকেটের কাছে সরকার অসহায়

মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৭:১০ পিএম

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর নায়েবে আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম শায়খে চরমোনাই বলেছেন, সরকার নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেও সয়াবিনের সিন্ডিকেট ভাঙতে ব্যর্থ হয়েছে। ভোজ্যতেলের সিন্ডিকেটদের কাছে সরকার অসহায়। তিনি বলেন, দুর্নীতিবাজ ব্যবসায়ীদের স্বার্থ রক্ষায় এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাসের মূল্য দফায় দফায় বৃদ্ধি করছে। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন করোনায় জনজীবন বিপর্যস্ত, বেকারত্ব, দারিদ্রতা বৃদ্ধি পেলেও সরকারি দলের নেতা আর লুটেরা গোষ্ঠীর লুটপাট অব্যাহত রয়েছে। এর মধ্যেই চলছে সরকারের মূল্যবৃদ্ধির আগ্রাসন। চাল-ডাল, ভোজ্য তেল, চিনি, আদা-ময়দাসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধিতে মানুষ যখন অতিষ্ঠ, তখন এলপিজি গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধি জনজীবনকে আরো দুর্বিষহ করে তুলেছে।

আজ বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে মুফতী সৈয়দ ফয়জুল করীম বলেন, সব সেক্টর দুর্নীতিবাজদের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছে। বিদেশ থেকে গ্যাস আমদানি করা হচ্ছে জনগণের স্বার্থে নয়, লুটপাটের স্বার্থে। দেশকে আমদানিকৃত গ্যাসের ওপর নির্ভরশীল করে তোলা হয়েছে। তিনি বলেন, সরকারি উদ্যোগে পর্যাপ্ত সিলিন্ডার গ্যাস উৎপাদন না করে একচেটিয়া ব্যবসার মাধ্যমে জনগণের পকেট কেটে লুটেরাদের পকেট ভারী করার সুযোগ করে দিচ্ছে সরকার। সরকার জনগণের স্বার্থ রক্ষার চেয়ে লুটেরাদের স্বার্থ রক্ষায় মরিয়া। তিনি এলপিজি সিলিন্ডারের মূল্যবৃদ্ধির সিদ্ধান্ত বাতিল করে, গ্যাস খাতের দুর্নীতি, অপচয়, অব্যবস্থাপনা দূর করে দেশের গ্যাস দেশবাসীকে সাশ্রয়ী মূল্য দেয়ার আহবান জানান।

এদিকে, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা গাজী আতাউর রহমান বলেছেন, মানুষের নাগরিক অধিকার ও ভোটাধিকার ফিরে পেতে ইসলামের বিজয় অনিবার্য। ইসলামই সব শ্রেণি পেশা ও দলমতের মানুষের জানমাল, ইজ্জত আব্রুর রক্ষার গ্যারান্টি দিয়েছে। তিনি বলেন, ইসলামী আদর্শ প্রতিষ্ঠিত না থাকার কারণে জনমনে ভয় ও শঙ্কা বিরাজ করছে। মানুষ তাদের নাগরিক ও মৌলিক অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। দুর্নীতি, সন্ত্রাস ও মাদক সমাজের রন্ধ্রে রন্ধ্রে বিস্তার লাভ করছে। এমতাবস্থায় শান্তি নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ইসলামের বিজয় অনিবার্য হয়ে পড়ছে।

আজ সকালে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা জেলা দক্ষিণের দোহার থানা শাখার উদ্যোগে স্থানীয় একটি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত দোহার থানা ও পৌরসভা শাখার দায়িত্বশীল তারবিয়াতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। দোহার থানা শাখা সভাপতি আলহাজ হাফেজ মো. ইসমাইল হোসেন এর সভাপতিত্বে ও থানা সেক্রেটারী মো. সুলাইমান বেপারী এর সঞ্চালনায় প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর সহকারী প্রচার ও দাওয়াহ বিষয়ক সম্পাদক শেখ ফজলুল করীম মারুফ। বিশেষ অতিথি ছিলেন ঢাকা জেলা দক্ষিণ সভাপতি আলহাজ মো. শাহাদাত হোসাইন, সেক্রেটারী হাফেজ মাওলানা মো. জহিরুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক টি এম মাহফুজ, প্রশিক্ষণ সম্পাদক মাওলানা বেলাল হোসেন।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদ বলেছেন, ভোজ্যতেল সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের আকাশচুম্বি মূল্যবৃদ্ধিতে জনজীবন দুর্বিষহ ও বিপর্যস্ত। চাল, ডাল, আটা, চিনি, ভোজ্য তেল ও শাক-সবজির মূল্যবৃদ্ধিতে সাধারণ মানুষ আজ চরম বিপাকে। ব্যবসায়ীর নামে সিন্ডিকেট বাণিজ্যে জড়িতদের উপর সরকারের নিয়ন্ত্রণ নেই। আজ বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, ভোজ্যতেলসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম বাড়িয়ে বাজারে কৃত্রিম সঙ্কট সৃষ্টি করছে একদল মুনাফাখোর ও সিন্ডিকেট ব্যবসায়ী। তিনি অবিলম্বে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে আনার প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেয়ার জোর দাবি জানান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ