Inqilab Logo

শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২১, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৭ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

স্বাধীনতা কাপ দিয়ে শুরু হবে নতুন ফুটবল মৌসুম

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৮:০৩ পিএম

সবকিছু ঠিক থাকলে এবারের ঘরোয়া ফুটবল মৌসুম শেষ হবে ২০ সেপ্টেম্বর। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) চলমান ১৩তম আসরের শিরোপা জয়ী বসুন্ধরা কিংস ও ঢাকা আবাহনী লিমিটেডের মধ্যকার ম্যাচ দিয়েই এদিন পর্দা নামবে চলতি মৌসুমের। ম্যাচ শেষে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস ও রানার্সআপ শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের খেলোয়াড় ও কর্মকর্তাদের হাতে ট্রফি তুলে দেবে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। এরপরই শুরু হবে নতুন মৌসুমের জন্য তোড়জোড়।

ঘরোয়া ফুটবলের বড় তিন আসরের মধ্যে ২০২০-২১ মৌসুমে ফেডারেশন কাপ ও বিপিএল মাঠে গড়ালেও করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ও সময় স্বল্পতার কারণে স্বাধীনতা কাপ টুর্নামেন্ট আর হচ্ছে না। এই টুর্নামেন্ট ছাড়াই পর্দা নামবে এবারের ফুটবল মৌসুমের। তবে এ মৌসুমে না হলেও নতুন মৌসুমের প্রথম টুর্নামেন্ট স্বাধীনতা কাপ। বরাবর ফেডারেশন কাপ দিয়ে মৌসুম শুরু হলেও এবার এতে পরিবর্তন আসছে। স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তিকে স্মরণীয় করে রাখতেই আসন্ন মৌসুম শুরু হবে স্বাধীনতা কাপ টুর্নামেন্ট দিয়ে। সোমবার দুপুরে মতিঝিলস্থ বাফুফে ভবনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান বাফুফের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও পেশাদার লিগ কমিটির চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম মুর্শেদী। তিনি আরো জানান, চলতি বছরই শুরু হবে নতুন ফুটবল মৌসুম। সেই হিসেব মতো আগামী ডিসেম্বরে মাঠে গড়াবে মৌসুমসূচক টুর্নামেন্ট স্বাধীনতা কাপ। সালাম মুর্শেদী বলেন,‘স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে আগামী মৌসুমের প্রথম টুর্নামেন্ট স্বাধীনতা কাপ আয়োজন আমরা বড় পরিসরে করতে চাই। শুধু বিপিএলের দলগুলো নিয়েই নয়, বাছাই প্রক্রিয়ার মাধ্যমে আরো তিনটি দল স্বাধীনতা কাপে খেলবে। এই টুর্নামেন্ট শেষ হওয়ার পর মাঠে গড়াবে ফেডারেশন কাপ। তারপর শুরু হবে লিগ।’

বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বর্তমানে সংস্কার কাজ চলছে। তাই আগামী মৌসুমে বিপিএলের কোনো ম্যাচ এই ভেন্যুতে হচ্ছে না- এটা অনেকটাই নিশ্চিত। ক্লাবগুলো আবার কমলাপুর স্টেডিয়ামের টার্ফে খেলতে চায় না। রাজধানীর বাইরে গেলে খরচ বেড়ে যায়। সবকিছু মিলিয়ে আগামী মৌসুমকে খুবই চ্যালেঞ্জিং হিসেবে দেখছেন সালাম মুর্শেদী, ‘ভেন্যু একটি বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়াবে। ঢাকার মধ্যে আর্মি স্টেডিয়াম ও রাজধানীর আশেপাশের ভেন্যুগুলোতে খেলা চালাতে হবে এবার। ক্লাবগুলোর সঙ্গে আলোচনা করে একটি সমাধান বের করার চেস্টা করবো আমরা।’

এএফসি’র গাইড লাইন অনুযায়ী বিপিএলের ক্লাবগুলোকে নিয়ে প্রতি মৌসুমেই বয়সভিত্তিক একটি টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে হবে বাফুফেকে। এ ব্যাপারে বাফুফের যেমন উদাসীনতা রয়েছে তেমনি ক্লাবগুলোর রয়েছে অনীহা। এবার সঙ্গে যোগ হয়েছে করোনাভাইরাস। আগামী মৌসুমে এটাকেও বড় চ্যালেঞ্জ হিসেবে প্রাধান্য দিচ্ছেন সালাম, ‘লিগ শেষে বয়সভিত্তিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করাও আমার জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। আমি সেই চ্যালেঞ্জ নিলাম। আশা করি বয়সভিত্তিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারবো।’

আগামী মৌসুমের খেলা শুরুর দিনক্ষণ ও দলবদলসহ সবকিছুর তারিখ চূড়ান্ত হবে ১৬ সেপ্টেম্বর বাফুফের নির্বাহী কমিটির সভায়। এই সভায় আরামবাগ ক্রীড়া সংঘের শাস্তি নিয়েও আলোচনা হবে। সোমবার সংবাদ সম্মেলন শেষে সদ্য সমাপ্ত বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়নশিপ লিগের (বিসিএল) রানার্সআপ দল নোফেল স্পোটিং ক্লাবকের কর্মকর্তাদের হাতে ট্রফি তুলে দেন সালাম মুর্শেদী। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাফুফের নির্বাহী কমিটির সদস্য জাকির হোসেন চৌধুরী, মো. ইলিয়াস হোসেন, মো. নূরুল ইসলাম নূরু ও সাধারণ সম্পাদক মো. আবু নাইম সোহাগসহ অন্যান্যরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঘরোয়া ফুটবল

১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন