Inqilab Logo

সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০৯ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

‘পেন্সিলে আঁকা পরী’ বানাবেন না অমিতাভ, ফেরত দিচ্ছেন অনুদানের টাকা

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১১:০৪ এএম

সিনেমা না বানিয়েই সরকারি অনুদানের টাকা ফেরত দিচ্ছেন অমিতাভ রেজা। ২০২০-২১ অর্থবছরে হুমায়ূন আহমেদের উপন্যাস ‘পেন্সিলে আঁকা পরী’র পাণ্ডুলিপি জমা দিয়েছিলেন অমিতাভ রেজা। এই সিনেমার জন্য জন্য ৬০ লাখ টাকা সরকারি অনুদান পেয়েছিলেন অমিতাভ রেজা। কিন্তু সেই সিনেমাটি তিনি নির্মাণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

অমিতাভ রেজা জানান, ছবির বাজেট হিসেবে প্রথম কিস্তিতে হাতে আসা ১৮ লাখ টাকার পুরোটাই ফেরত দিবেন তিনি। এর সঙ্গে জরিমানা হিসেবে ১৮ হাজার টাকা ফেরত দিতে হবে তাকে। এর মধ্যে তিনি সরকারের অনুদান কমিটির সঙ্গে এ নিয়ে আলাপও করেছেন। এর কারণ হিসেবে তিনি জানান, হুমায়ূন আহমেদের স্ত্রী ও সন্তানদের সমন্বয়ে গঠিত ট্রাস্টি বোর্ড এই সিনেমার গল্পের জন্য বড় অঙ্কের অর্থ এবং সেই সঙ্গে মুক্তির পর সিনেমার আয়ের অংশীদারিত্ব চাওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে তাকে।

অমিতাভ রেজা চৌধুরী গণমাধ্যমকে বলেন, ‘হুমায়ূন আহমেদের স্ত্রী ও সন্তানদের সমন্বয়ে গঠিত একটি ট্রাস্টি বোর্ড স্যারের (হুমায়ূন আহমেদ) কোনো উপন্যাস বা অন্য কিছুর কপিরাইটসহ সার্বিক বিষয়গুলো দেখছে। তাদের শর্তের পরিমাণ ব্যয় এই মুহূর্তে বহন করা আমাদের পক্ষে সম্ভব নয়। ট্রাস্ট্রি বোর্ডের শর্ত নিয়েও আমার কোনো আপত্তি নেই। তবে মনে কষ্ট পেয়েছি, কারণ আমাকে সরকার ৬০ লাখ টাকা দিচ্ছে সিনেমাটি নির্মাণের জন্য। এখন সুন্দর করে সিনেমাটি বানাতে আমাকে সরকারের অর্থের সঙ্গে সমপরিমাণ অর্থ বিনিয়োগ করতে হবে। ফলে বোর্ডের শর্ত মেনে সিনেমাটি করতে পারছি না।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমি শর্তগুলোর বিরোধিতা করছি না। নিশ্চয়ই স্যারের কর্মগুলোকে সঠিক সুরক্ষা দেওয়ার জন্যই নিয়মগুলো করা হয়েছে। তবে সেটি পালন করে এই সিনেমাটি বানাতে গেলে সিনেমাটা আর হবে না। বরং স্যারের গল্পের অবমাননা করা হবে বলে আমি এটি নির্মাণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

হুমায়ূনপত্নী অভিনেত্রী ও পরিচালক মেহের আফরোজ শাওন এ প্রসঙ্গে গণমাধ্যমকে বলেন, ‘এখানে কেন ট্রাস্টি বোর্ডের কথা বলা হচ্ছে আমি জানি না। কোনো বোর্ড নেই। আমরা সবাই লেখকের পরিবারের সদস্য। আমরা নিজেরা বসে কিছু সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কিছু নিয়ম মেনে যে কেউ চাইলে কাজ করতে পারবেন। হুমায়ূন আহমেদ ও তার সৃষ্টির কোনো অবমাননা যেন না হয় সেদিকে আমাদের মনোযোগ।’

উল্লেখ্য, মূলত আরেক নন্দিত নির্মাতা আবু সাইয়িদ হুমায়ূন আহমেদের ‘পেন্সিলে আঁকা পরী’ উপন্যাসটি থেকে সিনেমা নির্মাণের অনুমতি নিয়েছিলেন, পরে তার কাছ থেকে অনুমতি নেন অমিতাভ রেজা।

অমিতাভ রেজা এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন তার প্রথম ওয়েব ফিল্ম ‘মুন্সিগিরি’ নিয়ে। পূর্ণিমা-চঞ্চল চৌধুরী-শবনম ফারিয়া অভিনীত এ ছবিটি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে উন্মুক্ত হচ্ছে শিগগিরই। এদিকে নির্মাতার মুক্তি প্রতীক্ষিত দ্বিতীয় চলচ্চিত্র ‘রিক্সা গার্ল’ নিয়ে যাচ্ছেন উত্তর আমেরিকায়। ৭ থেকে ১৭ অক্টোবর মিল ভ্যালি চলচ্চিত্র উৎসবে দেখানো হবে ছবিটি। যেখানে আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকছেন অমিতাভ রেজা নিজেও। ফিরেই দেবেন নতুন নির্মাণের ঘোষণা।



 

Show all comments
  • Mozibul Islam ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১:৪৬ এএম says : 0
    Better not to take any money for this cinema by his family. The story will retain alive if family allow without any interest.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঢালিউড


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ