Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৩ কার্তিক ১৪২৮, ১১ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

আইসিইউ স্থাপনের দাবি

মাগুরায় সমাবেশ

স্টাফ রিপোর্টার, মাগুরা থেকে : | প্রকাশের সময় : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১২:০৪ এএম

মাগুরা সদর হাসপাতালে আইসিইউ নির্মাণ, প্রয়োজন অনুযায়ী ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগ ও আউটসোর্সিং বন্ধ করার দাবিতে গণকমিটি মাগুরা জেলার উদ্যোগে গতকাল সকালে মাগুরা সদর হাসপাতালের সামনে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
গণকমিটির আহ্বায়ক এটিএম মহব্বত আলীর সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব প্রকৌশলী শম্পা বসুর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য প্রদান করেন, গণকমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক কাজী নজরুল ইসলাম ফিরোজ, সদস্য নিখিল রঞ্জন মিত্র, বাসারুল হায়দার বাচ্চু।
সমাবেশে বক্তারা বলেন, আন্তর্জাতিক নিয়ম অনুযায়ী কোন হাসপাতালে তার বেড সংখ্যার ৫ শতাংশ বেড নিয়ে আইসিইউ থাকার কথা। মাগুরা সদর হাসপাতাল আড়াইশো বেডের। সেই অনুযায়ী এই হাসপাতালে ১৩টি আইসিইউ বেড থাকার কথা। কিন্তু মাগুরা জেলা সদর হাসপাতাল কোন আইসিইউ নেই। করোনা দুর্যোগের শুরু থেকে গণকমিটি মাগুরা জেলার পক্ষ থেকে মাগুরা জেলা সদর হাসপাতালে পিসিআর ল্যাব (করোনা টেস্ট ল্যাব), আইসিইউ ও হাই-ফ্লো অক্সিজেন সাপ্লাই সিস্টেম স্থাপন করার দাবি জানান হয়েছে।
করোনা দুর্যোগের দেড় বছরে কেবলমাত্র হাই-ফ্লো অক্সিজেন সাপ্লাই সিস্টেম স্থাপন সম্পন্ন হয়েছে। আইসিইউ নির্মাণের ক্ষেত্রে দেড় বছর ধরে শুধু আশ্বাস দেয়া হচ্ছে কিন্তু কোন কার্যকর পদক্ষেপ নিতে দেখা যাচ্ছে না। গত বছর বাজেটে করোনা চিকিৎসার জন্য দশ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ করা হলো। সেখানে উল্লেখ করা হলো হাসপাতালে আইসিইউ নির্মাণে বিশেষ গুরুত্ব দেয়া হবে। কিন্তু মাগুরা জেলা সদর হাসপাতালে তার প্রতিফলন দেখা গেল না।
মানববন্ধেেন বক্তারা আরও বলেন, মাগুরা জেলার সদর হাসপাতাল ও উপজেলা হাসপাতালগুলোতে ডাক্তার, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মীর অনেক সংকট রয়েছে। আউটসোর্সিং এর মাধ্যমে স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগ দেয়ায় দুর্নীতি হচ্ছে।
সমাবেশ থেকে অবিলম্বে মাগুরা সদর হাসপাতালে আইসিইউ নির্মাণ; প্রয়োজন অনুযায়ী ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগ ও আউটসোর্সিং বন্ধ করার দাবি জানান হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ