Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

রামগতিতে ভূমি অফিসের অফিস সহায়কের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ

রামগতি (লক্ষ্মীপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৩:৫৪ পিএম

লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার আলেকজান্ডার পৌর ভূমি অফিসটি দুর্নীতির আখড়ায় পরিনত হয়েছে। সেবা গ্রহীতারা এখানে এসে প্রতিনিয়ত নানা হয়রানির শিকার হচ্ছে।

আলকজান্ডার পৌর ভূমি অফিসের অফিস সহায়ক মোঃ মফিজুর রহমানের বিরুদ্ধে দালালি করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। একজন অফিস সহায়ক সরকারী বিধি লংঘন করে সেবা গ্রহীতাদের জিম্মি করে নিয়মের বাইরে অতিরিক্ত টাকা আদায় করে ভূমি অফিস কে নানা বিতর্কিত করে ফেলেছে। জমিজমা সংক্রান্ত নানা কাজে আসা সেবা গ্রহীতারা অফিস সহায়ক মফিজের নিকট নানা হয়রানির শিকার হচ্ছেন। টাকার বিনিময়ে অসম্ভব কাজ সম্ভব করাই মফিজের কাজ। সম্প্রতি রামগতি পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের মৃত কালামিয়ার ছেলে তাজল ইসলাম জনান, আলকজান্ডার মৌজার সাড়ে ৫৭ শতাংশ জমি নামজারি (জমা খারিজ) করতে তার কাছ থেকে বিভিন্ন খরচ দেখিয়ে ৩৩ হাজার টাকা হাতিয়ে নেন অফিস সহায়ক মোঃ মফিজুর রহমান। অথচ জমা খারিজের রশদি (ডিসিআর )লেখা ছিল ১ হাজার এক ১ শ ৫০ টাকা। খতয়িান হাতে পেয়ে তাজল ইসলাম দেখেন তার সাড়ে ৫৭ শতাংশ জমির স্থলে সাড়ে ৪০ শতাংশ জমি নামজারি জমা খারজি হয়। বাকি ১৭ শতাংশ না হওয়ার বিষয়ে মফজিুর রহমানকে জিজ্ঞাসা করা হলে তাদরে মধ্যে বাগবতিণ্ডা হওয়ার বিষয়টি প্রকাশ পায়। এমন অভিযোগ আলেকজান্ডার পৌর ভূমি অফিসের অফিস সহায়ক মফিজের বিরুদ্ধে। শুধু তাজল ইসলাম নয়, পৌরসভার বহু মানুষ তার হাতে জিম্মি। টাকা ছাড়া ফাইল নড়েনা আলেকজান্ডার পৌর ভূমি অফিসে।

এবিষয়ে অভিযুক্ত অফিস সহায়ক মোঃ মফিজুর রহমান বিষয়টি সম্পুর্ন ভিক্তিহীন বলে ফোন কেটে দেন।

পৌর ভূমি অফিসের সহকারী ভূমি কর্মকর্তা জিয়াউর রহমান বলেন,তার অফিস এই ধরনের অনিয়মের কোন সুযোগ নেই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: দুর্নীতি

৯ নভেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন