Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ১০ কার্তিক ১৪২৮, ১৮ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

আনোয়ারায় চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে আগুন! জনমনে নানা প্রশ্ন

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম)উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৩:৫৫ পিএম

চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার বরুচড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন চৌধুরীর অস্থায়ী কার্যালয়ে শুক্রবার ভোররাত সাড়ে ৩ টায় আগুনের ঘটনা ঘটেছে। এতে পরিষদের গুরুত্ব পূর্ণ নতিপত্রসহ আসবাবপত্রের ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে জানাযায়। আগুনের ঘটনা চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন চৌধুরী পরিকল্পিত বলে জানালেও বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে চলছে নানা প্রশ্ন । ঘটনার পর উপজেলা চেয়ারম্যান তৌহিদুল হক চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেখ জোবায়ের আহমেদ, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) সৈয়দ ওমর ও আনোয়ারা ফায়ার সার্ভিসের তদন্ত দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ বিষয়ে থানায় মামলার প্রস্ততি চলছে।
এদিকে আগুনের ঘটনাকে কেন্দ্র করে ইউনিয়নের বিভিন্ন চায়ের দোকানে চলছে বিভিন্ন রকম আলোচনা। কেউ বলছে নির্বাচনের পূর্বে চেয়ারম্যানকে ফাঁসানোর জন্য পরিকল্পিত ভাবে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। তবে অন্যদের ধারণা বিপক্ষকে হয়রানির জন্য চেয়ারম্যান নিজেই এ ঘটনা ঘটিয়ে থাকতে পারে। ভোর সাড়ে ৩ টায় আগুন লাগলেও ফায়ার সার্ভিসকে কেন জানানো হয়নি! এই প্রশ্ন জনমনে ঘুরপাক খাচ্ছে।

চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন চৌধুরী জানায়, শুক্রবার ভোররাত সাড়ে ৩ টায় আগুন লাগলে স্থানীয় লোকজন এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তিনি ধারণা করেন পরিষদের অডিট কে সামনে রেখে নতিপত্র পুঁড়ে দিয়ে অডিটরের কাছে আমাকে ফাঁসানোর জন্য পরিকল্পিত ভাবে প্রতিপক্ষ এ ঘটনা ঘটিয়েছে। তিনি এঘটনার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আওতায় আনার জন্য মামলার প্রস্ততি চলছে বলে জানান।

আনোয়ারা ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা মো. মাসুদ পারভেজ জানান, শুক্রবার ভোররাতে আগুন লাগলেও ফায়ার সার্ভিসকে কেউ অবহিত করেনি। দুপুর সাড়ে ১২ টায় আগুনের ঘটনার খবর পেয়ে তদস্ত দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আগুন

২ অক্টোবর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ