Inqilab Logo

রোববার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০১ কার্তিক ১৪২৮, ০৯ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

সার্জেন্টের মামলায় ক্ষুব্ধ হয়ে নিজের মোটরসাইকেলে আগুন

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ২:১২ পিএম

ট্রাফিক আইন অমান্য করার অভিযোগে পুলিশ মামলা দেওয়ার কারণে এক ব্যক্তি ক্ষুব্ধ হয়ে নিজেই নিজের মোটরসাইকেলে আগুন দিয়েছেন। আজ (সোমবার) সকালের দিকে রাজধানীর গুলশান-বাড্ডা লিংক রোডে এ ঘটনা ঘটে।

এই ঘটনার একটি ভিডিও ফেসবুকে বিভিন্ন জনের টাইমলাইনে ঘুরছে। ওই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে- রাস্তার পাশে দাঁড় করিয়ে রাখা একটি মোটরসাইকেলে দাউ দাউ করে আগুন জ্বলছে। ক্ষুব্ধ একজন ব্যক্তিকে ওই মোটরসাইকেলেই হেলমেট ছুড়ে মারতেও দেখা যায়। আশপাশে থাকা অন্যরা মোটরসাইকেলে পানি দিতে চাইলে ওই ব্যক্তি তাদের বাধা দেন। কারও কথা না শুনে নিজের গাড়িতে আরো পেট্রোল দিতে থাকেন।


জানতে বাড্ডা থানা পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে জানা যায়, ওই ব্যক্তি রাজধানীর লিংক রোড এলাকায় ট্রাফিক আইন অমান্য করায় কর্তব্যরত ট্রাফিক পুলিশ তাকে মামলা দেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে মোটর সাইকেলে আগুন লাগান তিনি।

এ বিষয়ে বাড্ডা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম আজাদ জানান, ট্রাফিক আইন অমান্য করায় দায়িত্বরত এক ট্রাফিক সার্জেন্ট তাকে একটি মামলা দেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে তিনি নিজের মোটরসাইকেলে আগুন ধরিয়ে দেন। পরে পুলিশ স্থানীয়দের সহায়তায় মোটরসাইকেলটির আগুন নেভায়।

আবুল কালাম আরও বলেন, মোটরসাইকেলটি এবং ওই চালককে আমরা থানায় নিয়ে এসেছি। তাকে আটকের জন্য আমরা থানায় নিয়ে আসিনি বা কোনো আইনি প্রক্রিয়ার জন্য নয়। তাকে আমরা জিজ্ঞাসাবাদ করছি তার ক্ষুব্ধ হওয়ার আসল কারণ কী এবং কেন তিনি এমন করেছেন।

 



 

Show all comments
  • এন হুদা ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৪:৩৩ পিএম says : 0
    দেশে একইরকম অনেক মানুষ আজ অসহায়,কেউ নীরবে কষ্ট নিয়ে জীবন কাটছে। করোনার- কারণে যতটুকু অসহায় তার থেকে বেশি অসহায় পুলিশ ও রাজনীতির অপশাসনের কারণে, যার হাতে ক্ষমতা সে আরো বেশী লোভে আছে, মনে হয় মানুষ কেউ কারো নয়. আল্লাহ সবই দেখছেন .!!!!!!
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammad Lokman ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৪:৩৭ পিএম says : 0
    AFSOS
    Total Reply(0) Reply
  • Engr Anwar Hossen Khan ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৫:৫৯ পিএম says : 0
    অচিরেই পুলিশের মান্থলি বাণিজ্য বন্ধ করতে না পারলে ভয়ঙ্কর আকার পরিণত হবে পুলিশ হয়রানি বর্তমানে এমন কোন পণ্য পরিবহনকারী নাই এবং এমন কোন বাস নাই যেগুলো পুলিশের সাথে মান্থলি করা নাই। পুলিশের নীতি হচ্ছে মান্থলি করো নয়তো বা মামলা খাও। এসব কারণে মোটরসাইকেল এবং প্রাইভেট কারের উপর মামলা হয়নি বেড়ে গেছে। কিন্তু দুঃখজনক হলেও এত বড় অনিয়ম কোন সাংবাদিক এই তুলে ধরছে না। পণ্য পরিবহনে ট্রাক ইস্টান গুলোতে কথা বলে দেখেন কি ভয়ানক পরিস্থিতি।
    Total Reply(0) Reply
  • Hasan Bin Faruk ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৫:৫৯ পিএম says : 0
    একটি রাষ্ট্র ধ্বংস হওয়ার প্রাথমিক লক্ষণ,, সাধারণ মানুষের উপর জুলুম করা
    Total Reply(0) Reply
  • Hoque Hoque ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৫:৫৬ পিএম says : 0
    বর্তমান বাংলাদেশের প্রশাসন দেশের ও জনগণের নিরাপত্তার কাজ না করে দালালি করে সাধারণ জনগণকে হয়রানি করছে ।
    Total Reply(0) Reply
  • এন হুদা ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৬:২৯ পিএম says : 0
    এই আগুন হুন্ডাতে নয় মনে হয় নিজ দেহে লাগিয়েছে, পুলিশের পোশাক পরা লোকগুলো আজকাল মনে হয় এক একটা রাষ্ট্র,কি না করছে তারা কেউ মোদের আড্ডা খানা করছে, কেউ হাজার কুটি টাকা পাচার করছে, কেউ কারো জমি বাড়ি ধকল করেছে। কেউ গুম খুন করছে শত শত, রাজনীতিকরা সাহস দিচ্ছে, এর দায়ী কার দেশের? মনে হয় রাষ্ট্র এই আগুনের খেলা দেখছে, আগুন লাগাতে রাষ্ট্র বাধ্য করছে। মানুষ এতো অসহায় হলে আর কিবা করার থাকে?
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মোটরসাইকেলে আগুন
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ