Inqilab Logo

রোববার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের ওপর বিমান হামলা

স্যাগাইং অঞ্চলে ব্যাপক সংঘর্ষ, মোবাইল ইন্টারনেট বিচ্ছিন্ন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১২:০২ এএম

মিয়ানমারের জান্তা সরকারের সেনাবাহিনী সাগাইং অঞ্চলে অভ্যুত্থানবিরোধীদের সঙ্গে সংঘর্ষের পর সেখানে বিমান হামলা শুরু করেছে। এছাড়া দেশটির কিছু জায়গায় ইন্টারনেট সংযোগ ও ফোন লাইন বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছে। তবে জান্তা সরকার এর দায় অস্বীকার করে অভ্যুত্থানবিরোধীদের দোষারোপ করেছে। খবর রয়টার্সের। খবরে বলা হয়, মিয়ানমারের স্যাগাইং অঞ্চলে জান্তাবিরোধীদের সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে। এরপর দেশটির কিছু এলাকায় বিমান হামলা শুরু করেছে সামরিক বাহিনী। স্থানীয় গণমাধ্যম এবং মিলিশিয়া সদস্যরা বলেছে, সংঘর্ষের কারণে স্যাগাইংয়ের কিছু জেলায় ফোন এবং ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয়েছে। গত ১ ফেব্রুয়ারি অং সান সু চি সরকারকে হটিয়ে দেশটিতে সামরিক বাহিনী ক্ষমতায় আসার পর থেকেই সঙ্কটাপন্ন পরিস্থিতি বিরাজ করছে মিয়ানমারে। দেশে জান্তাবিরোধী বিক্ষোভ চলে আসছে। সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে লড়তে গঠিত হয়েছে পিপলস ডিফেন্স ফোর্সেস (পিডিএফএস)। স্থানীয় সংবাদমাধ্যম ডিভিবির খবরে বলা হয়েছে, উত্তর-পশ্চিম মিয়ানমারের স্যাগাইংয়ের পিনলেবু এলাকায় সেনাবাহিনীর অভিযানের সময় বিমান হামলা চালানো হয়েছে। শনিবার রাতে ফোন এবং ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার আগে বিমান হামলা এবং বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে বলে বাসিন্দারা জানান। পিনলেবু পিডিএফের একজন সদস্য ওই এলাকার বাইরে থেকে বার্তাসংস্থা রয়টার্সকে বিমান হামলার তথ্য নিশ্চিত করেন। তবে হামলায় পিডিএফএসর কেউ হতাহত হয়নি বলে তিনি জানান। গত সপ্তাহে সংঘাতের কারণে ভারত সীমান্ত লাগোয়া চিন প্রদেশের থানল্যাং শহর ছেড়ে পালিয়ে যায় হাজার হাজার মানুষ। সে সময় লড়াইয়ে একজন খ্রিষ্টান যাজক নিহত হন। রয়টার্স।

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মিয়ানমার

৩১ অক্টোবর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন