Inqilab Logo

রোববার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০১ কার্তিক ১৪২৮, ০৯ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

জম্মু ও কাশ্মীরে ২৩ সাংবাদিককে হয়রানির ঘটনা তদন্তের আহ্বান মেহবুবা মুফতির

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১১:১৬ পিএম

জম্মু ও কাশ্মীরে সাংবাদিকদের হয়রানি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন পিডিপি সভাপতি এবং প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। প্রেস কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া, পিসিআইকে চিঠি লিখে দাবিগুলি যাচাই করার জন্য তিনি তদন্ত টিম পাঠাতেও বলেছেন। তার চিঠিতে মুফতি বলেন, সরকার কাশ্মীরের কমপক্ষে ২৩ জন সাংবাদিকের তালিকা করেছে, যাদের চলাফেরায় নিয়ন্ত্রণে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। ভারতের বাইরে অধ্যয়নরত পণ্ডিতদেরও বিদেশ ভ্রমণের অনুমতি নেই বলেও উল্লেখ করেন তিনি।–ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

উপত্যকায় সাংবাদিকদের নির্যাতনের অভিযোগ এনে ভারত কর্তৃক অবৈধভাবে নিয়ন্ত্রিত জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী এবং পিডিপি সভাপতি মেহবুবা মুফতি প্রেস কাউন্সিল অব ইন্ডিয়াকে (পিসিআই) একটি চিঠি লিখে জম্মু-কাশ্মীরে একটি স্বাধীন তথ্য-সন্ধানী দল পাঠানোর অনুরোধ জানিয়েছেন। মুফতি মিডিয়া ওয়াচডগকে লিখেছেন, আমরা দেখেছি, ভারতীয় সংবিধানের দৃষ্টিতে বাকস্বাধীনতা এবং মতপ্রকাশের স্বাধীনতা মৌলিক অধিকারগুলো ধারাবাহিকভাবে আক্রমণের শিকার হয়েছে। বিশেষ করে গত দুই বছরে একটি প্রতিকূল এবং অনিরাপদ ব্যবস্থার মধ্য দিয়ে আমরা সময় পার করছি।

তিনি লিখেন, সাংবাদিকদের অযৌক্তিক হয়রানি একটি আদর্শ হয়ে উঠেছে। তাদের বাসায় অভিযান, তলব এবং জিজ্ঞাসাবাদ করে নির্দোষ সাংবাদিকদের উপর অযাচিত শাস্তি অবৈধভাবে প্রয়োগ করা হয়েছে। সিআইডি দ্বারা সাংবাদিক এবং তাদের পরিবারের সদস্যদের ব্যাকগ্রাউন্ড চেক করা, কিছু সিনিয়র সাংবাদিকদের বাসস্থানসহ সুবিধা প্রত্যাহার, মোবাইল ফোন, ল্যাপটপ বাজেয়াপ্ত করা, পাসপোর্ট, এটিএম কার্ড ইত্যাদি জব্দ করাসহ নানাভাবে হয়রানি করা হয়েছে বলে তার অভিযোগ।

কেউ আশা করেছিলেন যে প্রেস কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া এই ব্যাপকভাবে রিপোর্ট করা ঘটনাগুলোর একটি স্বয়ংক্রিয় নোট নেবে কিন্তু মনে হচ্ছে যে আদালত সহ কোন প্রতিষ্ঠিত ওয়াচডগ ফোরাম জম্মু ও কাশ্মীরে এ সৃষ্ট বেদনাদায়ক পরিস্থিতিতে কোন আগ্রহ দেখায়নি। কথা বলার জন্য নয় কোন হস্তক্ষেপ চাই বলে তিনি চিঠিতে উল্লেখ করেন। তাই এই দাবিগুলি স্বাধীনভাবে যাচাই করতে এবং প্রতিকারমূলক পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য একটি সত্য-অনুসন্ধান দল পাঠানোর আহ্বান জানানো আমার কাছে বাধ্যতামূলক বলে মনে করছি বলে উল্লেখ করেন মেহবুবা মুফতি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জম্মু ও কাশ্মীর

১১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ