Inqilab Logo

রোববার, ২২ মে ২০২২, ০৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২০ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

দক্ষিণাঞ্চলে ভ্যাকসিন প্রদানে শতভাগ সাফল্য

নাছিম উল আলম | প্রকাশের সময় : ১ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৫ এএম

দেশের দক্ষিণাঞ্চলে করোনা প্রতিষেধক ভেকসিন প্রদানে ক্যাম্পেইনের দু’দিনে প্রায় শতভাগ সাফল্য অর্জিত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে গত ২৮ সেপ্টেম্বর দক্ষিণাঞ্চলে ৫ লাখ ৮১ হাজার ডোজ টিকা প্রদানের লক্ষ্য প্রায় অর্র্জিত হয়েছে। এর মধ্যে মহানগরীসহ বরিশাল জেলায়ই দেড় লক্ষাধীক মানুষকে প্রথম ডোজের ভেকসিন প্রদান করা হয়েছে। তবে মহনগরীতে প্রথম দিনে মাত্র ৩ হাজার ৫৩৪ জনকে ভেকসিন প্রদান করেছে বরিশাল সিটি করপোরেশন। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকগণ এ আদলে গণটিকা কার্যক্রম অব্যাহত রাখাসহ এ ক্ষেত্রে স্থানীয় সরকার প্রশাসনকে নিবিড়ভাবে সম্পৃক্ত করার কোন বিকল্প নেই বলেই মনে করেন। ইতোমধ্যে দক্ষিণাঞ্চলের ৬ জেলায় ৩০ লক্ষাধিক ডোজ ভেকসিন প্রদান সম্ভব হয়েছে। তবে এর মধ্যে ২৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দুই ডোজ সম্পন্নকারীর সংখ্যা প্রায় ১১ লাখ। শুধু প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন গত দু’দিনের ক্যাম্পেইনসহ প্রায় ২৬ লাখ মানুষ। এর আগে গণটিকা কার্যক্রমে দক্ষিণাঞ্চলে প্রায় আড়াই লাখ ডোজ ভেকসিন প্রয়োগ সম্ভব হয়েছিল।

নদ-নদী নির্ভর দক্ষিণাঞ্চলের গ্রামে-গঞ্জের সাধারণ নারী-পুরুষের পক্ষে উপজেলা সদরে গিয়ে ভেকসিন গ্রহণ অনেকটাই দুরুহ ব্যাপার। এর সাথে বয়োবৃদ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধীসহ অন্যান্য রোগে দুর্বলদের পক্ষেও দীর্র্ঘপথ পাড়ি দিয়ে উপজেলা সদরে পৌছে ভেকসিন গ্রহণে আগ্রহ থাকলেও সম্ভব হচ্ছে না। মহানগরীতে এ পর্যন্ত মাত্র ১ লাখ ১০ হাজারের মত মানুষ দ্বিতীয় ডোজের ভেকসিন সম্পন্ন করেছে বলে দায়িত্বশীল সূত্রে বলা হয়েছে। প্রথম ডোজ গ্রহণকারীর সংখ্যা ১ লাখ ৯০ হাজারের কাছে। নগরীর ৩০টি ওয়ার্ডের ৪০টি বুথে আগস্টের প্রথমভাগ থেকে ভেকসিন প্রদান কার্যক্রম চলছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, বেশিরভাগ বুথেই ভেকসিন গ্রহণকারীর অপেক্ষায় সময় পার করছিলেন টিকাদানকারীগণ। তবে সিটি কর্পোরেশনের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. ফয়সাল জানান, ‘যেসব মানুষ রেজিস্ট্রেশন করেছেন, তাদের ৮০ ভাগেরও বেশি ইতোমধ্যে ভেকসিন গ্রহণ করেছেন। দক্ষিণাঞ্চলের মানুষ প্রতিটি ইউনিয়ন কেন্দ্রে করোনা ভেকসিন প্রদানের বিষয়টি বিবেচনার দাবি জানান। নচেত জেলা ও উপজেলা সদরে গিয়ে ভেকসিন গ্রহণে সাধারণ মানুষের খুব একটা আগ্রহ সৃষ্টি হবে না বলেও মনে করছেন সচেতন মহল। বিষয়টি সম্পূর্ণভাবেই স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও সরকারে সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভরশীল বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বরিশাল বিভাগীয় দায়িত্বশীল মহল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ