Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

মতলবে খেলতে গিয়ে দেয়াল ভেঙ্গে শিক্ষার্থীর মৃত্যু

মতলব (চাঁদপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২ অক্টোবর, ২০২১, ৭:৪২ পিএম

চাঁদপুরের মতলব পৌরসভাধীন ৩নং ওয়ার্ড কলাদীর টিএন্ডটি এলাকায় দেয়াল ভেঙ্গে নিরব (১২) নামে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যুবরণ করেছে। ঐ শিক্ষার্থীকে আজ ২ অক্টোবর সকালে সমাধিস্থ করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী খেলার সাথী অর্ক জানায়, ১ অক্টোবর বিকেলে আমরা কয়েকজন ঐ বাড়ীতে খেলাধুলা করছিলাম। ওই সময়ে নিরব নির্মাণাধীন ভবনের একটি দেয়ালে উঠতে গেলে পা পিছলে নিচে পড়ে যায়। ঐ সময়ে সে হাত দিয়ে দেয়াল ধরতে গেলে দেওয়ালের ইটগুলো তার বুকের উপর পড়ে। সে চিৎকার দেয় এবং তার মুখ দিয়ে রক্ত বেরুতে থাকে। তার চিৎকার শুনে পার্শ্ববর্তী লোকজন দৌড়ে এসে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।

স্থানীয়ারা জানান, টিনশেড বাড়িটির এলাকার প্রয়াত আশু মাস্টার এর স্ত্রী ধীরে ধীরে নির্মাণ কাজ চালিয়ে যাচ্ছিলেন। এলাকার শিশুরাসহ নিরব মাঝেমধ্যেই এই নির্মাণাধীন ভবনে খেলাধুলা করতো। ঘটনার দিন বিকেলে নিরব তার খেলার অন্যান্য সাথীরাসহ নির্মানধীন ওই বাড়িতে যায়। সেই বাড়িতে দেওয়াল ভেঙে তার উপর পড়লে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। শিক্ষার্থী নিরব মতলবগঞ্জ জেবি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণিতে অধ্যয়নরত ছিল। তার পিতা গৌতম চন্দ্র দে মতলব বাজারের ওয়ার্কসপ ব্যবসায়ী। দুই ভাইয়ের মধ্যে বড় ভাই আকাশ ঢাকা কলেজে ম্যানেজমেন্টে অধ্যয়নরত।

নিহতের মা আলো ও পিতা গৌতম চন্দ্র দে জানায়, প্রতিবেশী অন্যান্য খেলার সাথীদের নিয়ে বাড়ীর পার্শ্ববর্তী নির্মাণাধীন একটি বাড়ীতে খেলাধুলা করতে যায়। কিছুক্ষণ পরে প্রতিবেশীদের ডাক চিৎকার শুনে ঘটনাস্থলে গিয়ে আমার ছেলেকে ইটের নিচে পড়ে থাকতে দেখি। তাৎক্ষনিক মুহূর্তে আমার ছেলেকে নিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ নিয়ে আমাদের কোন অভিযোগ নেই।

মতলব দক্ষিণ থানার ওসি (তদন্ত) মফিজুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। দেওয়ালটি ভেঙ্গে ওই শিক্ষার্থীর উপর পড়েছে। এ কারণেই তার মৃত্যু হয়েছে। কোন মামলা হয়নি।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চাঁদপুর


আরও
আরও পড়ুন