Inqilab Logo

শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২, ০৫ ভাদ্র ১৪২৯, ২১ মুহাররম ১৪৪৪
শিরোনাম

নিরাপদেই ওমানে মাহমুদউল্লাহরা

করোনা নেগেটিভ হলে আজ অনুশীলন

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৫ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০০ এএম

অনিশ্চয়তার মেঘ কাটিয়ে শেষ পর্যন্ত নিরাপদেই ওমান পৌঁছেছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। ওমানে ঘূর্ণিঝড়ের কারণে নির্ধারিত সময়ে বাংলাদেশ দলের যাত্রাই অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়ে গিয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত গতকাল রোববার গভীর রাতে মাহমুদউল্লাহ-মুশফিকরা ওমানের উদ্দেশে উড়াল দেন। গতকাল ভোরে তারা ওমানের মাসকাটে পৌঁছেছেন।
আরব সাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘শাহিন’ তৈরি করেছিল শঙ্কা। গতপরশু রাত ১০টা ৪০ মিনিটে নির্ধারিত ফ্লাইটে মাহমুদউল্লাহ-মুশফিকরা ওমান উড়াল দিতে পারবেন কি না, সেটি নিয়ে সন্দেহ ছিল। কারণ, দুপুরেই ওমানের বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ জানিয়ে দিয়েছিল, ঘূর্ণিঝড়ের কারণে মাসকাট বিমানবন্দরের সব উড়োজাহাজের ওঠানামা বন্ধ থাকবে। সে কারণে বিমানবন্দরে গিয়েও বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা নিশ্চিত হতে পারছিলেন না তারা আদৌ নির্ধারিত সময় যাত্রা করতে পারবেন কি না।
প্রথমে সিদ্ধান্ত হয় রোববার রাতে নয়, সোমবার বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল ওমান যাবে। বিমানবন্দর থেকে ক্রিকেটাররা যাঁর যাঁর বাড়ির দিকেও রওনা হয়ে গিয়েছিলেন। কিন্তু পরে রোববার রাতেই যাত্রার সিদ্ধান্ত হয়। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত সময়ের আড়াই ঘণ্টা পর রাত ১টা ২০ মিনিটে বাংলাদেশ দলকে বহনকারী উড়োজাহাজ ঢাকা ছাড়ে। এ যাত্রায় ১৪ ক্রিকেটার, ৩ টিমবয়, ১ জন করে নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন, মিডিয়া ম্যানেজার ও মেডিকেল অফিসার ছিলেন দলের ২১ সদস্যের বহরে। ফিজিও জুলিয়ান ক্যালফেতোও আছেন দলের সঙ্গে। এর আগে গত বুধবারই স্ত্রীকে নিয়ে ওমানে পৌঁছে গেছেন ওপেনার লিটন দাস।
আইপিএল খেলতে সাকিব আল হাসান ও মুস্তাফিজুর রহমান আছেন সংযুক্ত আরব আমিরাতে। ৭ অক্টোবরের পর সেখান থেকেই দলে যোগ দেবেন এই দুজন। প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো, ব্যাটিং কোচ অ্যাশওয়েল প্রিন্স, স্পিন বোলিং কোচ রঙ্গনা হেরাথ, পেস বোলিং কোচ ওটিস গিবসন ছুটি কাটিয়ে নিজ নিজ দেশ থেকে এসে যোগ দেবেন ওমানে।
নিয়মানুযায়ী গতকালের গোটা দিনটাই কোয়ারেন্টিনে থাকতে হয়েছে বাংলাদেশ দলকে। সবকিছু ঠিক থাকলে আজ বেলা দেড়টায় দলের অনুশীলন শুরু করার কথা। তবে সেটি অবশ্যই করোনা পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়া সাপেক্ষে। অনুশীলন হবে ৬ ও ৭ অক্টোবরও, একই সময়েই। এরপরই দলের ব্যস্ত সময় শুরু। বিশ্বকাপের প্রথম পর্বে পাপুয়া নিউগিনি, স্কটল্যান্ড ও ওমানের সঙ্গে খেলা বাংলাদেশের। স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে ১৭ অক্টোবর শুরু বাংলাদেশের বিশ্বকাপ অভিযান। ওমানের বিপক্ষে ম্যাচ ১৯ অক্টোবর, ২১ অক্টোবর মাহমুদউল্লাহর দল খেলবে পাপুয়া নিউগিনির বিপক্ষে। তিনটি ম্যাচই হবে ওমানের মাসকাটে। প্রথম দুটি ম্যাচ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায়, পরেরটি বিকেল ৪টায়।
দেশ ছাড়ার আগে রিয়াদ গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে বিশ্বকাপ পরিকল্পনা জানান মাহমুদউল্লাহ। বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘যদি আমরা ভালো ক্রিকেট খেলে বাছাইপর্বের ম্যাচগুলো জিতে মূলপর্বে যাই, তাহলে আমরা চেষ্টা করব যত বেশি ম্যাচ জেতা যায়। যেহেতু প‚র্ববর্তী বিশ্বকাপগুলোতে আমাদের খুব একটা সুখকর স্মৃতি নেই, তাই আমরা চেষ্টা করব সেই দেয়াল যেন ভাঙতে পারি।’
টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে নিজেদের দিনে জিততে পারে যেকোনো দলই। টানা তিন সিরিজ জিতে বাংলাদেশ দলের আত্মবিশ্বাসও তুঙ্গে। এবারের বিশ্বকাপে তাই ভালো করার দারুণ সুযোগ দেখছেন রিয়াদ, ‘আপনি বলতে পারবেন না এই ফরম্যাটে কখন কী হবে। ব্যক্তিগতভাবে আমার কাছে মনে হয় জাতি হিসেবে আমাদের জন্য ভালো একটি সুযোগ এই বিশ্বকাপে... যদি ইনশাআল্লাহ আমরা ভালো ক্রিকেট খেলতে পারি, ধারাবাহিক থাকতে পারি। আমরা সর্বশেষ কয়েকটা সিরিজে যেরকম ক্রিকেট খেলেছি ওরকম আত্মবিশ্বাস নিয়ে আমরা যদি খেলতে পারি। তাহলে ইনশাআল্লাহ আমাদের জন্য ভালো কিছু অর্জন করা সম্ভব।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ওমান


আরও
আরও পড়ুন