Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

নির্বাচন নিয়ে আওয়ামী লীগের বক্তব্য জনগণ বিশ্বাস করে না

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৫ অক্টোবর, ২০২১, ৮:২১ পিএম

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের-এর বক্তব্য ‘আগামী নির্বাচনে সরকার হস্তক্ষেপ করবে না’ প্রসঙ্গে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মহাসচিব প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেছেন, গত নির্বাচনের আগেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছিলেন, ‘আমার উপর আস্থা রাখুন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হবে’। কিন্তু নির্বাচনে কি হয়েছে, দেশবাসী অবাক বিস্ময়ে দেখেছে। কাজেই নির্বাচন নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের বক্তব্য জনগণ আর বিশ্বাস করছে না। তারা নিজেদের বিশ্বাসযোগ্যতা হারিয়েছেন।

আজ মঙ্গলবার বিকেলে পুরানা পল্টনস্থ কার্যালয়ে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে অনুষ্ঠিত পর্যালোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সভায় উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, আলহাজ আমিনুল ইসলাম, সহকারী মহাসচিব মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, কেএম আতিকুর রহমান, কেন্দ্রীয় প্রচার ও দাওয়াহ সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম, বরকত উল্লাহ লতিফ, মাওলানা শোয়াইব হোসেন, মাওলানা লোকমান হোসাইন জাফরী, মাওলানা শেখ ফজলুল করীম মারূফ, মাওলানা এবিএম জাকারিয়া, মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাকী।

মাওলানা ইউনুছ আহমাদ আরও বলেন, আগামী নির্বাচন নিয়ে সকল রাজনৈতিক দলকে নিয়ে সমঝোতায় পৌঁছতে হবে। তিনি বলেন, দলীয় সরকারের অধীনে অতীত নির্বাচনের অভিজ্ঞতা কারোরই ভাল নয়। আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সব প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী যাতে নির্বিঘ্নে মনোনয়নপত্র দাখিল করতে পারে। এ ব্যাপারে প্রশাসনকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সব জায়গায় প্রার্থী দেয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছে। তবে বিভিন্ন জায়গায় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থীগণকে নানাভাবে বাধা দেয়া হচ্ছে। অথচ নির্বাচন কমিশন এসব অনিয়মের ব্যাপারে সম্পূর্ণ নির্বিকার।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ