Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৮ সফর ১৪৪১ হিজরী

পূর্বশত্রুতার জেরে যুবকের হাত-পা বেঁধে পিটিয়ে হত্যা, গ্রেফতার ১

প্রকাশের সময় : ১২ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার, সাভার থেকে

ঢাকার সাভারে পূর্বশক্রতার জের ধরে এক যুবককে হাত-পা বেঁধে পিটিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় পুলিশ একজনকে গ্রেফতার করেছে। সোমবার দিবাগত গভীর রাতে সাভারের তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের ভরারী এলাকায় আসলাম মিয়ার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত এরশাদুজ্জামান রুবেল (২৮) কেরানীগঞ্জ থানার লংকারচড় গ্রামের সাদেক মিয়ার ছেলে। সে ভরারী এলাকায় আছিমুদ্দিন নামের এক ব্যক্তির বাড়িতে একটি কক্ষ ভাড়া নিয়ে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে বসবাস করত। সাভার মডেল থানার সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মাহাবুবুর রহমান বলেন, ভরারী এলাকার আসলাম মিয়ার বাড়ির ভাড়াটিয়া বখাটে লিটন ও মইনুল গত এক সপ্তাহ আগে এক নারী নিয়ে বাসায় অশ্লীল কার্যকলাপ করে। বিষয়টি টের পেয়ে এরশাদুজ্জামান রুবেল তাদের ঘটনাটি প্রকাশ করে দেয়ার হুমকি দিয়ে ২০ হাজার টাকা দাবি করে। তখন তারা রুবেলকে তিন হাজার টাকা দেয়। পরে বাকি টাকা দেয়ার কথা ছিল। বাকি টাকা দিতে না পারায় গত তিন দিন আগে রুবেল ওই দুই জনের মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। পরে বিষয়টি লিটন ও মইনুল তাদের বাড়িওয়ালা আসলাম মিয়াকে জানালে তিনি সোমবার রাতে ফোন করে রুবেলকে তার বাড়িতে ডেকে আনে। রুবেল বাড়িতে গেলে তার হাত-পা বেঁধে লোহার রড দিয়ে মাথায় ও শরীরের এলোপাতাড়ি আঘাত করে। পরে মুমূর্ষু অবস্থায় তারাই তাকে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়। এএসপি আরো জানান, এ ঘটনায় বাড়ির মালিক আসলাম মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে পুলিশের কাছে সব স্বীকার করেছে। তার বাড়ির ভাড়াটিয়া বখাটে লিটন ও মইনুলকেও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ
ঢাকার সাভারে একটি বাড়িতে এক শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টা করেছে বখাটে যুবক জুয়েল। গতকাল মঙ্গলবার সকালে সাভার পৌর এলাকার কর্ণপাড়া মহল্লায় ব্যবসায়ী টিপুর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এলাকাবাসী জানায়, দশ বছর বয়সী ওই শিশুকে নিয়ে কর্ণপাড়া মহল্লায় টিপুর বাড়িতে একটি কক্ষ নিয়ে তার মা-বাবা ভাড়া থাকতেন। সকালে বাড়িতে কেউ না থাকায় শিশুটিকে প্রতিবেশী জুয়েল তার কক্ষে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এ সময় শিশুটির চিৎকারে প্রতিবেশীরা এসে ঘরের দরজা ভেঙে তাকে উদ্ধার করে। এ ঘটনার পর থেকে ওই বখাটে জুয়েল পলাতক রয়েছে। খবর পেয়ে সাভার মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। অভিযোগ পাওয়া গেছে, ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করছে ওই এলাকার একটি প্রভাবশালী মহল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন