Inqilab Logo

বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৩ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

চাহিদা মিটিয়ে টিকা রফতানি করা হবে : দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৯ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০২ এএম

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের টিকা উৎপাদন করা হবে। দেশের চাহিদা মিটিয়ে তা বিদেশেও রফতানি করা হবে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের বসুন্ধরা রিভারভিউ এলাকায় পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট পরিচালিত মাদকাসক্তি নিরাময় ও মানসিক স্বাস্থ্য পরামর্শ কেন্দ্রের (ওয়েসিস) উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এ সব কথা বলেন। তিনি বলেছেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা আমাদের কথা দিয়েছে, করোনার ভ্যাকসিন তৈরি করতে যা যা সাপোর্ট প্রয়োজন তারা সব সাপোর্ট আমাদের দেবে। এতে বাংলাদেশ ভ্যাকসিন তৈরির পর বিদেশেও রফতানি করতে পারবে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আমরা একদিনে ৮০ লাখ ভ্যাকসিনের ডোজ দিয়েছি। সামনে আমাদের বিজয় দিবস। দিবসটিতে ৮০ লাখেরও বেশি টিকা দিতে পারবো বলে আশা করি। করোনার ভ্যাকসিনের জন্য প্রধানমন্ত্রী প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকা ব্যয় করেছেন। যত টাকা লাগুক দেশের প্রতিটি মানুষকে ভ্যাকসিনের আওতায় আনা হবে। তিনি বলেন, প্রায় সাড়ে তিন কোটি মানুষকে করোনা টিকার প্রথম ডোজ দিয়েছি। প্রায় দুই কোটি মানুষকে দ্বিতীয় ডোজ দিতে সক্ষম হয়েছি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তেব্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, দেশের সব কারাগারগুলোতে বন্দি অর্ধেক হচ্ছে মাদক সংক্রান্ত মামলার আসামি। দেশে এখন প্রায় ৮০ লাখ মানুষ মাদকাসক্ত হয়ে পড়েছে। মাদক নিয়ন্ত্রণে দেশের সব জায়গায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিষ্ঠার সাথে কাজ করে যাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর ডাকে আমরা একত্রে যেভাবে জঙ্গি দমন করেছি তেমনিভাবে সবাই মিলে মাদক নিয়ন্ত্রণে একত্রে কাজ করব।

তিনি আরো বলেন, মাদকের বিরুদ্ধে একত্রে কাজ করতে না পারলে আমাদেরকে হোচট খেতে হবে। মাদক আমাদের দেশে তৈরি হয় না। মাদক একটি ভয়ঙ্কর নেশা। তাই পরিবার, সমাজ ও দেশকে বাঁচাতে হলে আমাদের সবাইকে মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে হবে।

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু বলেন, ঢাকা-৩ আসনের মধ্যে দুইটি থানা অবস্থিত। অথচ ঢাকা-২ আসনের মধ্যে একটি থানাও নেই। আগামী জাতীয় নির্বাচনের আগেই কলাতিয়া এলাকায় আরো একটি নতুন থানা স্থাপনের জন্য তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে দাবি জানান।

পুলিশের মহাপরিদর্শক ড. বেনজীর আহমেদের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশিদ আলম, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক মো. আব্দুস সবুর মন্ডল, মনোচিকিৎসক মহিত কামাল, মনোজগত চিকিৎসক প্রফেসর ডা. মো. গোলাম রব্বানী ও ঢাকা জেলা প্রশাসক মো. শহিদুল ইসলাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন পুলিশের ঢাকা রেঞ্জ ডিআইজি হাবিবুর রহমান।

 

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী


আরও
আরও পড়ুন