Inqilab Logo

রোববার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

যুক্তরাষ্ট্রকে কড়া হুঁশিয়ারি তালেবানের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১০ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৭ পিএম | আপডেট : ৪:২৩ পিএম, ১০ অক্টোবর, ২০২১

তালেবানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আমির খান মুত্তাকি তাদের সরকারকে বিরক্ত ও ‘অস্থিতিশীল’ না করতে যুক্তরাষ্ট্রকে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের পর শনিবার দোহায় প্রথম মুখোমুখি আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্রকে এই হুঁশিয়ারি দিয়েছে তালেবান।

কাতারের রাজধানীতে আলোচনার পর মুত্তাকি আফগানিস্তানের রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা বখতারকে বলেন, ‘আমরা তাদের স্পষ্টভাবে বলেছি যে, আফগানিস্তানে সরকারকে অস্থিতিশীল করার চেষ্টা কারো জন্যই ভালো নয়।’ তিনি বলেন, ‘আফগানিস্তানের সাথে সুসম্পর্ক সবার জন্য ভালো। আফগানিস্তানে বিদ্যমান সরকারকে দুর্বল করার জন্য এমন কিছু করা উচিত নয় যা জনগণের জন্য সমস্যা সৃষ্টি করতে পারে।’ মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের ডেপুটি স্পেশাল রিপ্রেজেন্টেটিভ টম ওয়েস্ট এবং ইউএসএইড-এর শীর্ষ হিউম্যানিটারিয়ান কর্মকর্তা সারা চার্লসের নেতৃত্বে একটি আমেরিকান দলের সঙ্গে দুই দিনের আলোচনার প্রথম দিনেই মুত্তাকি এই মন্তব্য করেছেন।

মুত্তাকি বলেন, আমেরিকার উচিত আফগানদের ভ্যাক্সিনেশনে সাহায্য করা। তিনি জানিয়েছেন, আমেরিকা ভ্যাক্সিনেশনে সাহায্য করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। তিনি আরও বলেন ‘প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে যে দুই দেশ একে অপরের সাথে সুসম্পর্ক বজায় রাখবে এবং আফগানিস্তানের এই কঠিন সময় পার করছে তখন তারা ধৈর্য রাখবে যাতে আফগানিস্তান আরও শক্তির সাথে এই অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসে।’ তবে আমেরিকার তরফে এই বৈঠকের বিষয়ে কোনো মন্তব্য করা হয়নি।

আফগানিস্তানের অর্থনীতিও ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে, আন্তর্জাতিক সাহায্য বন্ধ, খাবারের দাম বাড়ছে এবং বেকারত্ব বাড়ছে। মুত্তাকি বলেন, তালেবান আফগানিস্তানের অসুবিধা নিয়ে আলোচনার জন্য অন্যান্য দেশের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বৈঠক করতে চেয়েছিল। তিনি বলেন, ‘আমরা যুক্তরাষ্ট্র এবং বিশ্বের অন্যান্য দেশের সঙ্গে এই ধরনের বৈঠক এবং সমাবেশ করার চেষ্টা করছি এবং আফগানিস্তানের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করতে, একে অপরের মতামত শুনতে চাই।’

তিনি বলেন, অর্থনীতি বা অন্য কোনো সমস্যার ক্ষেত্রে আফগানিস্তানের জনগণ যেসব সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছে তা সমাধান করা উচিত। আফগানিস্তানের বর্তমান সরকার অন্যান্য রাজ্যের সাথে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে এবং অন্যদের সাথে সহযোগিতা করতে, তার জনগণের সুবিধার্থে এবং তাদের সেবা প্রদানে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

আলোচনার সময় তালেবান প্রতিনিধিরা যুক্তরাষ্ট্রকে আফগান কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করতে বলেছিলেন, কাতারভিত্তিক আল-জাজিরা টেলিভিশনের প্রতিবেদনে মুত্তাকি বলেছেন। মন্ত্রী আরও বলেন, আফগান প্রতিনিধি দল এবং মার্কিন সমকক্ষরা দুই দেশের মধ্যে সম্পর্কের ‘একটি নতুন পাতা খোলার’ বিষয়ে আলোচনা করেছেন।

আলোচনার আগে, মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের এক কর্মকর্তা বলেছিলেন যে, তার অগ্রাধিকার ছিল আমেরিকা এবং অন্যান্য নাগরিক যারা আফগানিস্তান ত্যাগ করতে চায় তাদের নিরাপদ প্রবেশপথ নিশ্চিত করা এবং তালেবানরা যাতে আফগানিস্তানের মাটিতে ‘সন্ত্রাসীদের’ কাজ করার অনুমতি দেয় না। তিনি বলেন, ‘এই সভা স্বীকৃতি প্রদান বা বৈধতা প্রদানের বিষয়ে নয়। আমরা স্পষ্ট যে তালেবানদের নিজস্ব কর্মের মাধ্যমে যে কোন বৈধতা অর্জন করতে হবে।’ সূত্র: ডন।



 

Show all comments
  • হারুন অর রশীদ ১০ অক্টোবর, ২০২১, ১:৫৪ পিএম says : 0
    ওরা কি জিনিস রে ভাই! কাউকে পরোয়া করে না!
    Total Reply(0) Reply
  • নাকিব নাকিব নাকিব ১০ অক্টোবর, ২০২১, ১:৫৪ পিএম says : 0
    একেই বলে ঈমানি শক্তি
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আফগানিস্তান-যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন