Inqilab Logo

শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৮ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

চট্টগ্রামে শনাক্তের হার ০.৬৩ শতাংশ

জেলা-উপজেলায় করোনা পরিস্থিতি

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৫ এএম

দেশে মৃত্যু-শনাক্ত কমে আসছে। অনেক স্থানে শনাক্ত ২ শতাংশের নিচে নেমে এসেছে। তবে উপসর্গে মৃত্যু বাড়ায় নতুন করে করোনা চোখ রাঙাচ্ছে কিনা তা পরিস্কার নয়। যদিও এরইমধ্যে অনেক হাসপাতালে করোনা ইউনিট বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আমাদের সংবাদদাতাদের প্রতিবেদন।

চট্টগ্রাম ব্যুরো জানায়, করোনায় আরো একটি মৃত্যুহীন দিন দেখল চট্টগ্রাম। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত কারো মৃত্যু হয়নি। এ সময়ে শনাক্তের হারও কমেছে। নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১১ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় এক হাজার ৭১৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে ১১ জনের।
শনাক্তের হার ০ দশমিক ৬৩ শতাংশ। গত দেড় বছরে এটি সর্বনিম্ন। গত রোববার এ হার ছিল ১ দশমিক ৯১ শতাংশ।
নতুন আক্রান্তদের মধ্যে মহানগরীর বাসিন্দা ৮ জন এবং বাকি ৩ জন বিভিন্ন উপজেলার। এ নিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ দুই হাজার ২৫ জন। এ পর্যন্ত করোনায় মারা গেছেন এক হাজার ৩১১ জন।
রাজশাহী ব্যুরো জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে সংক্রমণের উপসর্গ নিয়ে ৫ জন মারা গেছেন। রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় রামেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটের বিভিন্ন ওয়ার্ডে মারা যাওয়া ৫ জনের মধ্যে রাজশাহীর ৩ জন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ১ জন ও নওগাঁর ১ জন রয়েছেন। মৃতদের পরিবারকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে দাফন করার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। পরিচালক আরো জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় রামেকে নতুন ভর্তি হয়েছেন ১২ জন।
সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৯ জন। রামেকের করোনা ইউনিটে করোনা আক্রান্ত হয়ে ৩২ জন এবং উপসর্গ নিয়ে রোগী ভর্তি রয়েছেন ৭২ জন। মোট ১৯২টি শয্যার বিপরীতে রোগী ভর্তি ছিলেন ১০৪ জন। রামেকের দুই ল্যাবে করোনা পরীক্ষা ও শনাক্ত গত ২৪ ঘণ্টায় পিসিআর মেশিনে ৭৯টি নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হন ৩ জন। অন্যদিকে মেডিক্যাল কলেজের পিসিআর মেশিনে ১১৪ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। তবে সেখানে কেউ করোনা শনাক্ত হননি। পরীক্ষা বিবেচনায় রাজশাহীতে শনাক্তের হার ১ দশমিক ৫৫ শতাংশ।
সাতক্ষীরা জেলা সংবাদদাতা জানান, করোনার উপসর্গ নিয়ে সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরো দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় বিভিন্ন সময়ে তাদের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার জয়নগর গ্রামের নুরসেদ আলী সানার ছেলে আব্দুর সাত্তার সানা (৫৭) ও একই উপজেলার শ্রীফলকাঠি গ্রামের মান্দারের ছেলে রয়েল (৬৫)। এ দু’জনের মৃত্যু নিয়ে সাতক্ষীরা মেডিক্যালে গত ২১ দিনে ৩৭ জন করোনা উপসর্গে মারা গেলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনা পরিস্থিতি
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ