Inqilab Logo

শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২১ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

ক্ষতিপূরণের দাবিতে বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি এলাকায় মানববন্ধন

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৯ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৪ এএম

কয়লাখনিতে ভূমি অধিগ্রহণের হয়রানি ও বড়পুকুরিয়ায় কয়লাখনি এলাকার দু’টি গ্রামে নতুন করে ভূমিধ্বস দেখা দেয়ায় সেখান থেকে বাসিন্দারা অন্যত্রে চলে যেতে ক্ষতিপূরণ না পাওয়ায় আন্দোলনে নেমেছে। এরই অংশ হিসেবে গতকাল সোমবার সকালে বড়পুকুরিয়া নতুন বাজার ঈদগাহ মাঠে একটি বিশাল মানববন্ধন করা হয়। মানববন্ধনে বলা হয়েছে, আগামী ৭ দিনের মধ্যে ক্ষতিপূরণসহ অন্যত্রে চলে যাওয়ার ব্যবস্থা করা না হলে সমস্ত দায়-দায়িত্ব খনি কর্তৃপক্ষকে নিতে হবে।
জানা যায়, ভূমি অবনমনের কারণে আতঙ্কে দিন কাটছে খনির পাশের দুই গ্রামের দুই শতাধিক পরিবারে। তারা ভূমি অধিগ্রহণের টাকা হাতে না পাওয়ায় বাড়ি-ঘর ছেড়ে চলে যেতে পারছে না।
কমিটির উপদেষ্টা ইব্রাহিম খলিল মানববন্ধনে বলেন, খনি কর্তৃপক্ষ আমাদেরকে চিনতে পারেনি। আমার কারা এবার চিনিয়ে দেয়া হবে। সেই সাথে তিনি ৭ দিনের আলটিমেটাম ঘোষণা করেন।
এ বিষয়ে খনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী কামরুজ্জামান জানান, ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা (এলও) চাহিদাপত্র দাখিল করলেই আমরা ক্ষতিপূরণ দেয়ার ব্যবস্থা নিব। ইতোপূর্বে ক্ষতিগ্রস্থদের যথারীতি ক্ষতিপূরণ দেয়া হয়েছে।
নতুন সমস্যার জরিপ হয়েছে। একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায়, ক্ষতিপূরণ দাবিতে অনেকটাই অনিয়মের আলামত পরিলক্ষিত যা পরীক্ষা-নিরীক্ষাধীন রয়েছে জেলা কর্তৃপক্ষের ভূমি অধিদপ্তরে। প্রকৃত ক্ষতিগ্রস্থদের অবশ্যই ক্ষতিপূরণ দেয়া হবে অনতি বিলম্বে। এ মানববন্ধনে দুটি গ্রামবাসী নারী-পুরুষ শিশু কিশোরসহ বিভিন্ন স্তরের লোকজনেরা অংশ নেয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন