Inqilab Logo

রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২২ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মাগুরায় গেন্ডারী আখ চাষে ঝুকছে চাষিরা

স্টাফ রিপোর্টার মাগুরা থেকে | প্রকাশের সময় : ২৫ অক্টোবর, ২০২১, ২:০২ পিএম

মাগুরায় গেন্ডারী আখচাষে লাভ বেশি হওয়ায় দিন দিন গেন্ডারীআখ চাষে ঝুঁকেছেন মাগুরার কৃষকরা। চলতি মৌসুমে মাগুরা জেলায় ৩০ হেক্টর জমিতে গেন্ডারী আখ চাষ করা হয়েছে। এখানকার আবহাওয়া ও মাটি গেন্ডারী আখ চাষের উপযোগী হওয়ায় ফলনও ভালো হয়। তবে স্থানীয়ভাবে পরিচিত গেন্ডারি, বোম্বাই ও মুগী জাতের আখ চাষে আগ্রহী হয়েছেন কৃষকরা। চিবিয়ে কিংবা রস করে খাওয়া আখের চাহিদা রয়েছে মাগুরা জেলায় ব্যাপক। জেলার শ্রীপুর উপজেলার খাষিয়াড়া, বরালিদহ, মাগুরা সদর উপজেলার শত্রুজিৎপুর এলাকায় ব্যাপক ভাবে আখের চাষ হচ্ছে। পাইকাড়ীরা ক্ষেত থেকে আখ কিনে আড়তে এনে খুচরা কারবারীদের কাছে বিক্রী করছে। মূল্য ও পাচ্ছে ভাল।

আখচাষী আব্দুল হামিদ জানান, সে চলতি মৌসুমে তিন বিঘা জমিতে চাষ করে ভালো ফলন পেয়েছে। দামও ভালো আছে। এরকম দাম থাকলে ভালো লাভ হবে বলে আশা করে তিনি। চাহিদা বেশি থাকায় ক্ষেতেই আখ বিক্রি হয়ে যায়। আবহাওয়া ভালো থাকায় এবার তেমন একটা রোগ বালাই দেখা দেয়নি। অন্যান্য বছরের তুলনায় বেশি লাভের আশা করছে তারা। আরেক কৃষক আমীর হোসেন জানান, চিনি, গুড় ও চিবিয়ে খাওয়ার জন্য আখ ফসল চাষ করা হয়ে থাকে। আখ একটি দীর্ঘমেয়াদি ফসল, যা জমিতে প্রায় ১৩-১৪ মাস থাকে। বাংলা সনের আশ্বিন ও কার্তিক মাসে আখ জমিতে রোপণ করা হয়। আখ বাজারজাতকরণের উপযোগী হতে সময় লাগে প্রায় ৮-১০ মাস।

জেলার কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপ-পরিচালক সুশান্ত কুমার প্রামানিক বলেন, এ জেলার মাটি আখ চাষের জন্য উপযোগী। এবার জেলায় ৩০ হেক্টর জমিতে আখ চাষ হয়েছে। আবহাওয়া ভালো থাকায় এবারে আঁখের ভালো ফলন হয়েছে। আশা করছি কৃষকরা লাভবান হবেন।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চাষিরা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ