Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৬ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

ভালোবাসার মানুষের জন্য রাজপ্রাসাদ ছাড়লেন জাপানের রাজকন্যা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৫ এএম

ভালোবাসার মানুষের জন্য রাজপ্রাসাদ ছাড়লেন জাপানের রাজকন্যা মাকো। মঙ্গলবার সকালে রাজপরিবার ত্যাগ করে দীর্ঘদিনের সহপাঠী এবং বন্ধু কেই কোমুরোর সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। তবে এর জন্য তাকে যাবতীয় রাজকীয় মর্যাদা ত্যাগ করতে হয়েছে। জাপানের আইন অনুযায়ী, রাজপরিবারের কোনও নারী সদস্য বাইরের কোনও সাধারণ পুরুষকে বিয়ে করলে তার রাজকীয় মর্যাদা হারান। পুরুষ সদস্যদের ক্ষেত্রে অবশ্য এ নিয়ম নেই।
প্রিন্সেস মাকো রাজকীয় মর্যাদা হারানোর পাশাপাশি রাজপরিবারের সদস্যদের বিয়ের ক্ষেত্রে যেসব আনুষ্ঠানিকতা পালন করা হয়, সেগুলোও পরিহার করেছেন। রাজকন্যা চলে গেলে তাকে অর্থ সাহায্য করা হয়, যা দিয়ে তার পরবর্তী জীবন কাটবে। মাকো ১৩ লাখ ডলারের সেই অর্থ নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন। অর্থাৎ, রাজকীয় তহবিলও প্রত্যাখ্যান করেছেন তিনি।
স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকাল ১০টায় বিয়ে নিবন্ধনের জন্য টোকিওর বাসভবন ছাড়েন তিনি। বাড়ি ছাড়ার আগে মা-বাবাকে সম্মান প্রদর্শন করেন। জড়িয়ে ধরেন প্রিয় ছোট বোনকে। তারপর গাড়িতে করে বিয়ে করতে যান নিজের দীর্ঘদিনের বন্ধুকে। মাকোর স্বামী একজন মার্কিন আইনজীবী। বিয়ের পর স্বামীকে নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রেই স্থায়ী হবেন তিনি। জাপানের সংবাদমাধ্যমে বেশ কিছু দিন ধরেই মাকো এবং কোমুরোকে নিয়ে আলোচনা চলছে। বিয়ের জন্যই যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফেরেন কোমুরো। জাপানি মিডিয়ার একাংশ এই নবদম্পতিকে প্রিন্স হ্যারি এবং মেগান ম্যার্কেলের সঙ্গে তুলনা করতে শুরু করেছে। জাপানের হ্যারি- মেগান বলা হচ্ছে তাদের। সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ