Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৬ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

বর্ষীয়ান আইনজীবী বাসেত মজুমদারের ইন্তেকাল

বন্ধ ছিল সুপ্রিম কোর্টের কার্যক্রম

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৮ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৩ এএম

‘গরিবের আইনজীবী’ খ্যাত সিনিয়র অ্যাডভোকেট আব্দুল বাসেত মজুমদার (৮৩) আর নেই। গতকাল বুধবার সকাল সোয়া ৮টায় তিনি ইন্তেকাল করেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্না ইলাইহি রাজিউন। বার্ধক্যজনিত নানা জটিলতায় গত ৩০ সেপ্টেম্বর থেকে আব্দুল বাসেত মজুমদার হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে ২৫ অক্টোবর তাকে লাইফ সাপোর্টে নেয়া হয়।

বর্ষীয়ান এই আইনজীবীর প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টের আপিল ও হাইকোর্ট বিভাগ এবং ঢাকার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচার কার্যক্রম বন্ধ রাখা হয়। গতকাল বুধবার সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেল মো. আলী আকবর স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি, বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল বাসেত মজুমদারের ইন্তেকালের সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে সুপ্রিম কোর্টসহ বিচারাঙ্গনের সর্বস্তরে শোকের ছায়া নেমে আসে। পেশাগত পরিচয়ের বাইরে তিনি আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ছিলেন। তার ইন্তেকালে রাজনৈতিক আদর্শের বাইরের সিনিয়র আইনজীবীরাও শোকে মূহ্যমান হয়ে পড়েন।

আবদুল বাসেত মজুমদারের ইন্তেকালে গভীর শোক প্রকাশ করেন, প্রেসিডেন্ট আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। এছাড়া আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ও যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম. রেজাউল করিম, রেল মন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ, অ্যাটর্নি জেনারেল এএম আমিনউদ্দিনসহ মরহুমের দীর্ঘদিনের সহকর্মী, সুপ্রিম কোর্ট বারে সিনিয়র আইনজীবীরা পৃথক শোক প্রকাশ করেন।

এদিকে গতকাল বাদ জোহর সুপ্রিম কোর্ট সংলগ্ন জাতীয় ঈদগাহ মাঠে অ্যাডভোকেট আবদুল বাসেত মজুমদারের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। জানাজায় প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন, আপিল বিভাগের বিচারপতি, হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন, মৎস্য ও পশুসম্পদ মন্ত্রী শ.ম রেজাউল করিম, বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ, অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন, সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, সুপ্রিম কোর্ট বারের সম্পাদক ব্যারিস্টার রূহুল কুদ্দুস কাজলসহ বহু আইনজীবী অংশ নেন। জানাজা শেষে মরহুমের লাশ কুমিল্লায় গ্রামের বাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই তাকে দাফন করা হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইন্তেকাল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ